For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

গর্ভাবস্থায় বেগুন খেলে এই ৫ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া হতে পারে, আজই বাদ দিন খাদ্যতালিকা থেকে!

|

গর্ভাবস্থায় একজন প্রত্যেক মহিলার শরীরেই বিভিন্ন ধরনের পরিবর্তন আসে। এই সময় শারীরিক ক্রিয়াকলাপ, খাদ্যাভ্যাস, দৈনন্দিন জীবনযাত্রা, সবকিছুরই অতিরিক্ত যত্ন নেওয়ার প্রয়োজন হয়। গর্ভবতী মহিলার খাদ্যাভাসের উপর নির্ভর করে গর্ভস্থ শিশুর স্বাস্থ্য, তাই কী খাবেন এবং কী এড়িয়ে চলবেন সেদিকে খেয়াল রাখা প্রয়োজন। গরম খাবার, ঠাণ্ডা খাবার কিংবা টক খাবারের মতো অনেক ধরনের খাদ্য গর্ভাবস্থায় কঠোরভাবে এড়িয়ে চলা হয়। কারণ এটা বিশ্বাস করা হয় যে, এগুলো গর্ভস্থ শিশুর স্বাস্থ্যের উপর খারাপ প্রভাব ফেলতে পারে।

আজ আমরা এমনই একটি খাবার সম্পর্কে আলোচনা করতে যাচ্ছি, যা গর্ভাবস্থায় যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলা উচিত। এই খাবারটি হল - বেগুন। যদিও বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গেছে যে, বেগুন স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রে অত্যন্ত উপকারি। এটি ভিটামিন, খনিজ এবং পুষ্টির উৎস। তবে আয়ুর্বেদ মতে, এটি মানবদেহের জন্য ক্ষতিকারক। গর্ভাবস্থায় বেগুন খাওয়া গর্ভবতী মা এবং গর্ভস্থ শিশুর স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রে ক্ষতিকর হতে পারে। তাহলে জেনে নিন, গর্ভাবতী মহিলাদের কেন বেগুন এড়িয়ে চলা উচিত।

আয়ুর্বেদ কী বলে?

আয়ুর্বেদ কী বলে?

আয়ুর্বেদ অনুসারে, গর্ভবতী মহিলাদের বেগুন খাওয়া এড়িয়ে চলা উচিত। বেগুনে প্রচুর পরিমাণে ফাইটোহরমোন বর্তমান, যা প্রিমেনস্ট্রুয়াল সিন্ড্রোম এবং অ্যামেনোরিয়া-এর চিকিৎসায় সহায়তা করে। তাছাড়া, বেগুন মূত্রবর্ধক হিসেবেও কাজ করে। গবেষণায় দেখা গেছে যে, গর্ভাবস্থায় নিয়মিত বেগুনের সেবন ঋতুস্রাবকে উদ্দীপিত করতে সক্ষম, যা গর্ভবতী মহিলাদের জন্য ভাল লক্ষণ নয়।

এছাড়া অন্যান্য কারণগুলি হল -

১) অকাল প্রসব

১) অকাল প্রসব

বিশেষজ্ঞদের মতে, যে মাটিতে বেগুন গাছ বড় হয় তা সাধারণত টক্সোপ্লাজমোসিস সমৃদ্ধ হয়। এই টক্সোপ্লাজমোসিস যৌগটি বেগুনের মধ্যে শোষিত হয়। আর গর্ভবতী মহিলারা বেগুন খেলে, এটি গর্ভস্থ শিশু দ্বারাও শোষিত হয়। এর ফলে অকাল প্রসবের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়।

২) অ্যালার্জির সমস্যা দেখা দিতে পারে

২) অ্যালার্জির সমস্যা দেখা দিতে পারে

বেগুন খেলে অনেকেরই ত্বকে অ্যালার্জির সমস্যা দেখা দেয়। তাই, গর্ভাবস্থায় বেগুন না খাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়। বেগুন খেলে হাত-পা কিংবা পেটে চুলকানি তথা ত্বকে অ্যালার্জি হওয়ার মতো সমস্যা বৃদ্ধি পেতে পারে।

আরও পড়ুন :গর্ভাবস্থায় এই ফলগুলো একেবারেই খাওয়া উচিত নয়

৩) গর্ভপাতের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়

৩) গর্ভপাতের ঝুঁকি বৃদ্ধি পায়

বেগুনে ঋতুস্রাব প্ররোচিত বৈশিষ্ট্য বর্তমান। এই বৈশিষ্ট্যের কারণে গর্ভাবস্থায় বেগুন খেলে গর্ভপাত হওয়ার ঝুঁকি থেকে যেতে পারে।

৪) অ্যাসিডিটির সমস্যা দেখা দিতে

৪) অ্যাসিডিটির সমস্যা দেখা দিতে

বেগুন খেলে অ্যাসিডিটির সমস্যা দেখা দিতে পারে। তাই গর্ভবতী মহিলাদের বেগুন খাওয়া এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেওয়া হয়ে থাকে।

English summary

Reasons To Avoid Brinjal (Eggplant) During Pregnancy In Bengali

Scroll below to know why pregnant women should avoid eggplant or Brinjal. Read on.
X