এই ভুলগুলি করলে জীবনেও ওজন কমবে না কিন্তু!

Written By:
Subscribe to Boldsky

ওজন কমানো মোটেও সহজ কাজ নয়। তাই তো এই লক্ষ্যে পৌঁছানোর জন্য অতিরিক্ত সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। যাতে কোনও ভুলের কারণে শত চেষ্টার পরেও ওজন কমছে না, এমন ঘটনা না ঘটে। কী কী ভুল সাধারণ এক্ষেত্রে হয়ে থাকে? সেই বিষয়েই বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে এই প্রবন্ধে।

একাধিক কেস স্টাডি করে দেখা গেছে ওজন কমানোর সময় খাবার খাওয়ার ব্যাপারে এমন কিছু ভুল অনেকে করে থাকেন, যে কারণে সকাল-বিকাল শরীরচর্চা করেও তেমন ফল পাওয়া যায় না। তাই তো ডায়েটের দিকে খেয়াল রাখাটা একান্ত প্রয়োজন। সেই সঙ্গে আরও কিছু নিয়ম মেনে চললে দেখবেন অল্প দিনেই ওজন কমবে একেবারে চোখে পরার মতো।

প্রথমেই যে ভুলটা বেশিরভাগই করে থাকেন, তা হল খাবার খাওয়া একেবারে কমিয়ে দেন বা খানই না। এমনটা করা একেবারেই উচিত নয়। কারণ একথা একাধিকবার প্রমাণিত হয়েছে যে, না খেয়ে ওজন কমানো একেবারেই সম্ভব নয়। আর কী কী ভুল একেবারেই করা উচিত নয়? সে সম্পর্কে জানতে গেলে যে চোখ রাখতে হবে বাকি প্রবন্ধে। তবে ওজন কমানোর সময় একটা বিষয় মাথায় রাখবেন, ঠিক মতো খাওয়া-দাওয়া করবেন, সেই সঙ্গে যদি নিয়ম মেনে শরীরচর্চা করতে পারেন, তাহলে দেখবেন ফল পাচ্ছেন একেবারে হাতে-নাতে।

তাহেল চলুন এবার চোখ রাখা যাক সেই সব কাজগুলির দিকে, যা ওজন কমানোর সময় একেবারেই করা উচিত নয়।

১. খালি পেটে থাকবেন না:

১. খালি পেটে থাকবেন না:

একটা কথা একেবারে মন্ত্রের মতো মাথায় ঢুকিয়ে নিন। না খেয়ে কিন্তু ওজন কমানো একেবারেই সম্ভব নয়। তাই তো ব্রেকফাস্ট, লাঞ্চ এবং ডিনার, কোনও সময় খালি পেটে থাকা চলবে না। না খেয়ে থাকলে, এক সময়ে গিয়ে খিদে এতটাই বেড়ে যায় যে, তা সহ্য় করা যায় না। ফলে সে সময় খিদের চোটে অনেকেই মাত্রাতিরিক্ত পরিমাণে ভাজাভুজি বা জাঙ্ক ফুড খেয়ে ফেলেন। ফলে ওজন কমার জায়গায় বাড়তে শুরু করে।

২. খাবার না খেয়ে শুধু জুস খাবেন না:

২. খাবার না খেয়ে শুধু জুস খাবেন না:

জুসে উপস্থিত চিনি খিদে আরও বাড়িয়ে দেয়। ফলে খাবার না খেয়ে যদি কেউ শুধু জুস খেয়ে যান, তাহলে তার খিদে কমে না, বরং বাড়তেই থাকে। ফলে এক সময়ে গিয়ে সে মাত্রতিরিক্ত খাবার খেয়ে ফেলেন। প্রসঙ্গত, ওজন কমানোর সময় বেশি করে ফাইবার এবং প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার খেতে হবে। তাতে অনেকক্ষণ পেট ভরা থাকবে, সেই সঙ্গে শরীরে পুষ্টিরও অভাব ঘটবে না।

৩. অস্বাস্থ্যকর খাবার এড়িয়ে চলতে হবে:

৩. অস্বাস্থ্যকর খাবার এড়িয়ে চলতে হবে:

অনেকেই ওজন কমাতে শুধু স্যালাড খান। কিন্তু সঙ্গে যোগ করেন চিজ বা ঐ জাতীয় অস্বাস্থ্যকর খাবার। ফলে ওজন তো কমেই না, বরং উলটো ফল হয়। তাই তো এইসব অতিরিক্ত ফ্যাট জাতীয় খাবার একেবারেই খাবেন না। পরিবর্তে পুষ্টিকর খাবার বেশি করে খাওয়ার চেষ্টা করবেন, যাতে শরীরের ক্ষয় রোধ হয়।

৪. ভাল করে চিবিয়ে খাবার খাবেন:

৪. ভাল করে চিবিয়ে খাবার খাবেন:

এই একটা বিষেয়ে অনেকেই খেয়াল রাখেন না। নানা কারণে কোনও মতে খাবার গিলে দৌড় লাগান অফিসের উদ্দেশ্যে। এমনটা করলেও কিন্তু ওজন বাড়ে। তাই সময় নিয়ে খাবার খান। ভাল করে চেবানোর পর তারপর খাবার গেলার অভ্যাস করুন। এমনটা না করলে নানা কারণে বেশি করে খাবার খাওয়ার ইচ্ছা তৈরি হয়। আর বেশি খেলে কী হয় তা তো কারও অজানা নেই। তাই না?

৫. অতিরিক্ত শরীরচর্চা করবেন না:

৫. অতিরিক্ত শরীরচর্চা করবেন না:

এমনটা করলে ওজন তো কমবেই না, উলটে শারীরিক এবং মানসিক চাপ বেড়ে গিয়ে শরীর খারাপ হতে শুরু করবে। তাই শরীরচর্চা করুন নির্দিষ্ট নিয়ম মেনে। অতিরিক্ত কোনও কিছুই কিন্তু শরীরের জন্য় ভাল নয়, একথাটা কোনও দিন ভুলে যাবেন না।

৬. লো ফ্যাট ডায়েট:

৬. লো ফ্যাট ডায়েট:

ওজন কমাতে অনেকে লো-ফ্যাট ডায়েট অনুসরণ করে থাকে। আপনাদের জানিয়ে রাখি এমন ডায়েট শরীরের পক্ষে একেবারেই ভাল নয়। কারণ লো ফ্যাট ডায়েট চার্টের মধ্যে যেসব খাবার জায়গা করে নেয়, সেগুলি খিদে খুব বাড়িয়ে দেয়। ফলে ওজন কমার জায়গায় লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়তে থাকে। প্রসঙ্গত, কী খাবেন, কতটা পরিমাণে খাবেন, সে বিষয়ে যদি বুঝে উঠতে না পারেন, তাহলে একজন ডায়েটেশিয়ানের পরামর্শ নিয়ে ডায়েট চার্ট বানিয়ে নিতে পারেন।

৭. নির্দিষ্ট পরিমাণে ক্যালরি খাবেন:

৭. নির্দিষ্ট পরিমাণে ক্যালরি খাবেন:

এই একটা উপাদান শরীরে বেশি গেলে খারাপ। আবার কম গেলেও ক্ষতি। তাই তো নির্দিষ্ট পরিমাণে ক্যালরি খেতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে যতটা ক্যালরি খাচ্ছেন, ততটা বার্ন হয়ে যাচ্ছে কিনা। এমনটা না হলেই কিন্তু ওজন বাড়তে শুরু করবে। প্রসঙ্গত, একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে শরীর তার প্রয়োজনীয় ক্যালরি না পেলে পেশি ভাঙতে শুরু করে। সেই সঙ্গে খিদেও মারাত্মক ভাবে বেড়ে যায়। কিন্তু ওজন ক্ষমতা যায় কমে। ফলে খাবার ঠিক মতো হজম হতে না পেরে ওজন বাড়তে শুরু করে।

৮. জাঙ্ক ফুড খাওয়া একেবারেই চলবে না:

৮. জাঙ্ক ফুড খাওয়া একেবারেই চলবে না:

এই ধরনের খাবার খেলে শরীরে ক্যালরি এবং ফ্যাটের পরিমাণ মারাত্মক হারে বাড়তে শুরু করে। আর এমনটা হলেই ওজন মাত্রাতিরিক্ত হারে বাড়তে শুরু করে। তাই যখন ওজন কমানোর বিষয়ে বদ্ধপরিকর হবেন, তখন এই সব খাবারের কথা একেবারে ভুলে যাবেন। না হলে কিন্তু বিপদ!

Read more about: রোগ, শরীর
English summary
If you’re serious about gaining weight, you have to stop skipping meals. Let that be your first order of business if you’re new to this weight gain game. Stop skipping meals. Skipping meals work against you regardless of the calorie intake. The more meals you can fit in your day the easier it is to hit your calorie goal for the day. If you’re working a deficit amount of calories, how exactly do you plan to gain the weight and muscle. Macros and Calories are your best friends.
Story first published: Saturday, November 18, 2017, 16:49 [IST]
Please Wait while comments are loading...