এবার সেলফি নিলেই শুরু হয়ে যাবে ক্যান্সারের চিকিৎসা!

Written By:
Subscribe to Boldsky

বেশি কিছু দিন আগে ডিংচ্যাক পূজার ইউটিউব চ্যানেলে একটি ভিডিও বেশ জনপ্রিয়তা পেয়েছিল। ভিডিওটি ছিল "সেলফি" নিয়ে। তারপর থেকে সারা দেশে এই গানটি দাবানলের চেহারা নিয়েছিল। ১৮-৩০ বছর বয়সিদের মধ্যে সেলফি নেওয়ার হুজুগ এতটা বেড়ে গিয়েছিল যে বেশ কয়েকজন তো এই করতে গিয়ে মারাত্মক অ্যাক্সিডেন্ট ঘটিয়ে ফেলেন। যদিও সেলফি সম্পর্কিত দুর্ঘটনা বা মৃত্যু এদেশে এই প্রথম ঘটল, এমন নয়!

সম্প্রতি প্রকাশিত একটি রিপোর্ট অনুসারে সেলফি নিতে গিয়ে মৃত্যু বা দুর্ঘটনার মুখোমুখি হওয়া মানুষদের সংখ্যা আমাদের দেশে সবথেকে বেশি। শুধু তাই নয়, ইন্টারনেট ঘাঁটলে জানতে পারবেন ২০১৪ সালে থেকে ২০১৬, টানা ২ বছর সারা বিশ্বের মধ্যে ভারত এক নম্বরে রয়েছে সেলফি সম্পর্কিত মৃত্যুর দিক থেকে। এমন পরিস্থিতে ভারতীয়দের কী করণীয়, সে বিষয়ে গবেষণা করতে গিয়ে উঠে এসেছে এক আজব তথ্য।

সম্প্রতি হওয়া এই গবেষণা অনুসারে ভারতীয়দের এই সেলফি নেওয়ার হুজুগ এবার ভাল কাজে লাগতে চেলেছে। কিভাবে? গবেষকরা লক্ষ করেছেন সেলফি নেওয়ার পর সেই ছবি বিশ্লেষণ করার মধ্যে দিয়ে শরীরে ক্যান্সার রোগের উপস্থিতি সম্পর্কে নির্দিষ্ট করে বলে দেওয়া সম্ভব। শুধু তাই নয়, একথা রীতিমতো প্রামামিত হয়ে গেছে যে সেলফিকে কাজে লাগিয়ে বাস্তবিকই ক্যান্সার রোগের ডিটেকশন সম্ভব।

কিভাবে এমনটা সম্ভব?

কিভাবে এমনটা সম্ভব?

"ইউবিকম্প ২০১৭" নামক একটি আলোচনা সভায় প্রকাশিত এই গবেষণাপত্রে উল্লেখ করা হয়েছে সেলফির দেখে খুব সহজেই প্যানক্রিয়াটিক ক্যান্সারকে চিহ্নিত করা সম্ভব। চিকিৎসকদের মতে শরীরের বিশেষ এই অংশে ক্যান্সার রোগ বাসা বাঁধলে এতদিন পর্যন্ত সে বিষয়ে জানতেই পারতো না রোগী। কারণ প্রথম পর্যায়ে এমন ক্যান্সারের কোনও লক্ষণই প্রকাশ পায় না। ফলে যতদিনে রোগী এই বিষয়ে জানতে পারেন, ততদিনে এতটাই দেরি হয়ে যায় যে কোনও কিছু করারই আর সম্ভব হয়ে ওঠে না। ফলে এক প্রকার বিনা চিকিৎসাতেই মৃত্যুমুখে ধাবিত হয় এক জীবন। তবে আর নয়। এবার থেকে পেনক্রিয়াস ক্যান্সার আক্রান্ত রোগীরাও বাঁচার সুয়োগ পাবেন। আর এক্ষেত্রে সাহায্যের হাত বাড়াবে স্বয়ং সেলফি! প্রসঙ্গত, প্যানক্রিয়াটিক ক্যান্সারে আক্রান্ত হলে একেবারে প্রথমেই যে লক্ষণটি প্রকাশ পায়, তা হল জন্ডিসের মতো মুখ-চোখ হলুদ হতে শুরু করে, যা বেশিরবাগ ক্ষেত্রেই নজরে পরে না রোগীদের। কিন্তু এই অবস্থায় যদি সেলফি নেন, তাহলে সেই ছবিতে শরীরের এই পরিবর্তন স্পষ্ট লক্ষ করা যায়, যা দেখে চিকিৎসকেরা নির্দিষ্ট করে বলে দিতে পারেন যে এই হলুদ ভাব জন্ডিসের কারণে হয়েছে, না ক্য়ান্সারের কারণে। এবার বুঝেছেন তো এতদিন পর্যন্ত যে সেলফি ভারতীয়দের জীবন নিত, এবার থেকে সেটাই নতুন প্রাণের সন্ধান দেবে।

এখানেই শেষ নয়:

এখানেই শেষ নয়:

প্যানক্রিয়াটিক ক্যান্সার আক্রান্ত হলে যে শুধু মাত্র ত্বকের প্রকৃতি চেঞ্জ হতে শুরু করে, তা নয়, সেই সঙ্গে চোখের সাদা অংশও ধীরে ধীরে হলুদ হয়ে যায়। কিন্তু খালি চোখে এই রঙের পরিবর্তনটা বোঝা অনেকের পক্ষেই সম্ভব নয়, যা সেলফি দেখে বুজে যাওয়া সম্ভব। আসলে মুখের খুব কাছ থেকে ছবি তোলার কারণে চোখের অন্দরে কোনও পরিবর্তন হচ্ছে কিনা তা সেলফিতে স্পষ্ট ধরা পরে যায়, যা দেকে চিকিৎসকেদের বুঝে নিতে কষ্ট হয় না শরীরের বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে।

চোখ শুধু মনের নয়, শরীরেরও জানলা:

চোখ শুধু মনের নয়, শরীরেরও জানলা:

একাধিক গবেষণায় একথা প্রমাণিত হয়ে গেছে যে চোখের অবস্থাকে বিশ্লেষণ করার মধ্যে শরীরের অন্দরে ঘাপটি মেরে থাকা একাধিক রোগ সম্পর্কে সহজেই খোঁজ লাগানো সম্ভব। যেমন ধরুন চোখের জলকে বিশ্লেষণ করে জেনে নেওয়া সম্ভব শরীরে শর্করার অভাব দেখা দিয়েছে কিনা। এক্ষেত্রে যেমন চোখ দেখে চিকিৎসকেরা বোঝার চেষ্টা করছেন যে রক্তে বিলিরুবিনের মাত্রা বেড়েছে কিনা।। তাই বন্ধুরা ভুলেও সেলফি নেওয়া যেন বন্ধ করবেন না। তবে এই কাজটি করবেন একটু সাবধানে। তাহলেই কেল্লাফতে!

রয়েছে একটা অ্যাপও!

রয়েছে একটা অ্যাপও!

"বিলিস্ক্রিন অ্যাপ" নামে খ্যাত এই অ্যাপলিকেশনটি অন করলেই মোবাইলের সেলফি মোড অ্যাকটিভ হয়ে যাবে। তখন যদি আপনি সেলফি নেন, তাহলে এই অ্যাপটি সেই ছবি, বিশেষত আপনার চোখের অবস্থাকে বিশ্লেষণ করে বলে দেবে আপনার শরীরে কোনও মারণ রোগ বাসা বেঁধেছে কিনা। একাধিক কেস স্টাডিতে দেখা গেছে এই অ্যাপটি ৮৯.৭ শতাংশকে ক্ষেত্রে একবারে নির্ভুল ভাবে বলে দিতে সক্ষম শরীরে বাসা বেঁধে থাকা রোগের সম্পর্কে। তাই রোগেদের সঙ্গে চলা এই অসম লড়াইয়ে জিততে চাইলে আজই এই অ্যাপটা ডাউনলোড করুন!

Read more about: রোগ, শরীর
English summary
The app, dubbed BilliScreen, uses computer vision algorithms and machine learning algorithms to detect jaundice in a photo of a person’s eyes. Specifically, it measures elevated levels of bilirubin in the sclera, the white part of the eye. Jaundice, an early symptom of pancreatic cancer and a number of other diseases, is caused by a buildup of bilirubin.
Please Wait while comments are loading...