For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

গলা ব্যথা? সাধারণ গলা ব্যথা না করোনা ভাইরাস? দেখুন কীভাবে বুঝবেন

|

শীতের শুরুতে জ্বর, সর্দি-কাশি, গলা ব্যথা অনেকেরই হয়। অন্য কোনও উপসর্গ না থাকলে শুধু গলায় হালকা ব্যথা হলেও এখন চিন্তায় অস্থির হয়ে পড়েন সবাই, করোনা হয়নি তো? কারণ গলা ব্যথা, জ্বর, সর্দি-কাশি প্রত্যেকটাই করোনার লক্ষণ। তাহলে কী করে বুঝবেন, কোনটা সাধারণ গলা ব্যাথা আর কোনটা করোনা? আপনাকে সাহায্য করতে আজকের এই আর্টিকেল।

করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা অনেকটাই কমেছে দেশে, কমেছে মৃত্যুর সংখ্যাও। কিন্তু যতদিন না ভ্যাকসিন আসছে ততদিন আতঙ্ক কাটবে না। বিশ্বব্যাপী একটা ত্রাসের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে এই ভাইরাস। এই পরিস্থিতিতে একটু গলা ব্যথা হলেও ভয় পাচ্ছেন মানুষ। তবে চিকিৎসকেরা বলছেন, গলা ব্যথা হলেই সেটা যে করোনা তা কিন্তু একেবারেই নয়। ভাইরাল ইনফেকশন হলেও গলা ব্যথা হতে পারে। সেন্টার ফর ডিসিস কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনের বক্তব্য অনুযায়ী, আবহাওয়ার পরিবর্তনের কারণে জ্বর, সর্দি, কাশির পাশাপাশি এই সময় গলা ব্যথাও হচ্ছে বহু মানুষের। তবে গলা ব্যাথার সব লক্ষণই কিন্তু কোভিড নয়।

গলা ব্যাথা কেন হয়?

গলা ব্যাথা কেন হয়?

গলা ব্যাথার মূল কারণ ইনফেকশন। গলায় হালকা ব্যথা, অস্বস্তি, গলা শুকিয়ে যাওয়া সবই হতে পারে ইনফেকশন থেকে বা বাতাসের কারণে। গলা ব্যথাকে তিন ভাগে ভাগ করা হয়। মূলত গলার কোন অংশ ক্ষতিগ্রস্ত, সেটার ওপর ভিত্তি করে পার্থক্য করেন চিকিৎসকেরা। ফ্যারিঞ্জাইটিস মুখের ঠিক পেছনের অংশটিকে প্রভাবিত করে, টনসিলাইটিস হল টনসিল ফোলা এবং লালভাব, তৃতীয় ধরন হল ল্যারিনজাইটিস, ল্যারিনেক্স নামক ভয়েস বক্স ফুলে যাওয়াকে ল্যারিনজাইটিস বলে।

গলা ব্যথা করোনার সাধারণ লক্ষণ

গলা ব্যথা করোনার সাধারণ লক্ষণ

সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনের রিপোর্ট অনুযায়ী, সাধারণ সর্দি এবং ফ্লু-র লক্ষণের পাশাপাশি গলা ব্যথাও করোনার লক্ষণ। করোনা ভাইরাস সহজে নাক দিয়ে শরীরে ঢুকতে পারে তারপর সেটি গলায় পৌঁছায়, সেই কারণে গলা ব্যথা হয়। তবে এই উপসর্গ এক ব্যক্তি থেকে অন্য ব্যক্তিতে খুব কম ছড়ায়।

সাধারণ গলা ব্যথা না করোনা ভাইরাস, পার্থক্য কী?

সাধারণ গলা ব্যথা না করোনা ভাইরাস, পার্থক্য কী?

করোনা আক্রান্তের গলা ব্যথা তখনই হয় যখন ভাইরাস মেমব্রেনস-এ ঢোকে যেটি নাক ও গলার সঙ্গে যুক্ত। এর ফলে নাক ও গলা ফুলে যায়।

সংক্রামিত ব্যক্তির যে ব্যথা অনুভূত হয় তাকে 'ফ্যারঞ্জাইটিস' বলা হয়। একইভাবে, সাধারণ সর্দি এবং অন্যান্য ফ্লু জাতীয় অবস্থার ক্ষেত্রে, গলা ব্যথা একইভাবে শুরু হয়। তবে, করোনা ভাইরাসের কারণে যদি গলা ব্যাথা হয় তাহলে আক্রান্ত রোগীর জ্বর, শুকনো কাশি এবং ক্লান্তির মতো অন্যান্য লক্ষণগুলিও দেখা দেবে, তার সঙ্গে গলাতে ব্যথা অনুভব করবেন।

আর যদি কারুর শুধু গলা ব্যাথা হয়, অন্য কোনও লক্ষণ না দেখা দেয় তাহলে ভয়ের কিছু নেই, বলছেন চিকিৎসকেরা। এক্ষেত্রে ঠাণ্ডা লেগে বা ফ্লু-র কারণে গলা ব্যথা হতে পারে। তবে যেকোনও অসুস্থতা দেখা গেলে মানুষকে সতর্ক হতে বলছেন চিকিৎসকেরা। ১০০ শতাংশ নিশ্চিত হতে করোনা পরীক্ষা করানোর পরামর্শ দিচ্ছেন তারা।

অন্য যেসব কারণে গলা ব্যথা হতে পারে

অন্য যেসব কারণে গলা ব্যথা হতে পারে

সাধারণ সর্দি-কাশি, ফ্লু এবং শ্বাসকষ্ট থাকলেও গলার সমস্যা দেখা দিতে পারে। শুষ্ক বাতাসের কারণেও আপনি গলা ব্যথা অনুভব করতে পারেন। অ্যালার্জি থাকলেও গলার সমস্যা দেখা দিতে পারে।

চিকিৎসা

চিকিৎসা

করোনার সঙ্গে লড়াই চলছে, এই পরিস্থিতিতে গলা ব্যথা হলে ফেলে না রেখে চিকিৎসা করিয়ে নেওয়াই ভালো। ওষুধ ও ঘরোয়া প্রতিকারের মাধ্যমে চিকিৎসা করা যেতে পারে। গলা ব্যথা হলে প্রচুর পরিমাণে জল খেলে দ্রুত সেরে যেতে পারে। গলায় ব্যথা কমাতে হালকা গরম জলে নুন মিশিয়ে গার্গল করার পরামর্শ দিচ্ছেন চিকিৎসকেরা। ঘন ঘন বাষ্প নিলেও কাজ হবে। তাই ভয় না পেয়ে চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে চলুন।

English summary

Random Sore Throat vs. COVID Sore Throat : How to Tell the Difference?

With winter already at our doorstep and other viral infections waiting to impact our health, sore throat has become one of the major concerns in terms of health.
X