হাইহিলের থেকে সাবধান!

By Swaity Das
Subscribe to Boldsky

যে কোন ও অত্যাধুনিক শহরের রাস্তা ঘাটে বা দামি রেস্তরাঁয় চোখে পড়ে পেন্সিল স্কার্ট বা লেগিন্সের সঙ্গে হাইহিলে আধুনিকার সাজ। কিন্তু মজার বিষয় হল মেয়েদের এই পোশাকের জন্য হাইহিলের উৎপত্তি হয়নি। ইতিহাস বলছে, পুরুষ ঘোড় সওয়ারদের ঘোড়া চড়ার সময় পাদানি থেকে যাতে পা পিছলে না যায় তার জন্য প্রথম হাইহিলের ব্যবহার শুরু হয়। আর তার প্রমাণ খ্রিস্ট-পরবর্তী নবম শতাব্দীর একটি বাটির গায়ে আঁকা ছবি দেখে জানতে পারা যায়। আনুমানিক ষোলশ শতাব্দী নাগাদ নারীদের মধ্যে হাইহিলের চলন শুরু হয়। আর এখন তো কিটেন হিল থেকে হাই প্লাটফর্ম হিল, নানা রকম হাইহিলের প্রচলন হয়ে গেছে।

হোক সে প্রতিদিনের কর্মক্ষেত্র বা ডিস্কের নাচের ফ্লোর অথবা আলো ঝলমলে বলিউডি অনুষ্ঠান, আজ আধুনিকার সাজের একটি অন্যতম অঙ্গ হল হাইহিল। কিন্তু হাইহিল ফ্যাশন স্টেটমেন্ট হলেও দীর্ঘদিন ধরে এর ব্যবহার বিভিন্ন রকমের অসুখ ডেকে আনতে পারে। প্রসঙ্গত, আজ সারা বিশ্বে পায়ের আঙ্গুলের, পাতার ও গোড়ালির নানা অসুখের জন্য দায়ি এই হিল জুতো। এখানেই শেষ নয় হাই হিলের কারণে হতে পারে আরও অনেক সমস্যা। যেমন...

১. গাঁটে গাঁটে ব্যাথা

১. গাঁটে গাঁটে ব্যাথা

অন্যান্য জুতোর মতো হিল জুতোয় কোনও অভিঘাত শোষণ করার ক্ষমতা থাকে না। তাছাড়া চলার সময় শুধু সামনের দিক ছাড়া পায়ের পাশের দিকটা আড়ষ্ট করে দেয় হাইহিল জুতো। ফলে পা শুধু সোজা রাখা যায়। তাই পদক্ষেপের সমস্ত অভিঘাত এসে পড়ে হাঁটুর ওপর। আমেরিকার অস্থিবিশেষজ্ঞদের মতে এর থেকেই শুরু হয় গাঁটে গাঁটে ব্যাথা এবং আরথ্রাইটিসের সমস্যা। তবে হিলের কারণে শুধু হাঁটুর উপর চাপ পরে না, পরে গোড়ালিও উপরেও। কাজেই সারাদিন হাইহিল পড়ে কাটানোর পরে পায়ের প্রতিটি গাঁটে ব্যাথা হওয়াটা অস্বাভাবিক নয়।

২. পেশীর সমস্যা দেখা দেয়:

২. পেশীর সমস্যা দেখা দেয়:

এটা হিল জুতোর পরার সব থেকে খারাপ দিক। বিশেষজ্ঞদের মতে, দীর্ঘ সময় যাবত হিল জুতো ব্যবহার করলে গোড়ালি অনেকটা উঁচু হয়ে থাকে। ফলে গোড়ালির সাথে যে পেশীগুলি টেনডনের মাধ্যমে যুক্ত, তারা ছোট হয়ে যায় এবং পেশীগুলির ভিতরে নানা পরিবর্তিত হতে শুরু করে। এই কারণে পায়ে প্রচণ্ড যন্ত্রণা এবং পেশীতে টান ধরে।

৩. কোমরে ব্যাথা:

৩. কোমরে ব্যাথা:

হাইহিল জুতো আপনার গোড়ালিকে উঁচু রেখে কোমরকে অস্বাভাবিক ভাবে সামনে ঠেলে রাখে। প্রকৃতির নিয়মের বিপরীতে দীর্ঘ দিন ধরে এমন অস্বাভাবিক ভঙ্গিতে হাঁটা-চালার কারণে কোমরে প্রচণ্ড ব্যাথার সৃষ্টি হয়।

৪. পায়ের পাতা কঠিন হয়ে যায়:

৪. পায়ের পাতা কঠিন হয়ে যায়:

প্রকৃতির স্বাভাবিক নিয়মে গোড়ালি শরীরের সমস্ত ভার বহন করে। সেখানে পায়ের পাতা আপনাকে ভারসাম্য দেয় তার নরম প্যাডের মাধ্যমে। কিন্তু হাইহিল প্রকৃতির এই স্বাভাবিক নিয়মকে লঙ্ঘন করে। উল্টো করে দেয় গোড়ালি আর পায়ের পাতার কাজ। আসলে হাইহিল পড়ার সময় পায়ের পাতা নেয় সমস্ত শরীরের ভার, আর গোড়ালি তখন সহায়ক হয় মাত্র। ফলে ধীরে ধীরে পায়ের পাতা থেকে এই প্যাডের মতো মাংসল অংশটি সরে যায় বা ক্ষয়ে যায়। কোন কোনও প্লাস্টিক সার্জেন এই সময় বোটক্স নামের একটি পদার্থ পায়ের পাতায় ঢুকিয়ে দেন, যাতে এর মাধ্যমে পুনরায় পায়ের পাতা নরম হয়। অন্যথায় নিদারুণ যন্ত্রণার সৃষ্টি হতে পারে।

৫ গোড়ালির সমস্যা:

৫ গোড়ালির সমস্যা:

খালি পায়ে হাঁটলে পায়ের পাতা ও গোড়ালির উপর দেহের ওজনের ভারসাম্য বজায় থাকে। ফলে গোড়ালির অস্থিসন্ধিতে কম চাপ পড়ে। কিন্তু, হাইহিল জুতো পরলে পায়ের পাতা ও গোড়ালির ভারসাম্য নষ্ট হয়, সেই সঙ্গে গোড়ালির অস্থিসন্ধিতে এসে পড়ে পুরো শরীরের ভার। ফলে স্বাভাবিক ভাবেই গোড়ালি মচকে যাওয়ার আশঙ্কা বাড়ে, সৃষ্টি হয় প্রচণ্ড যন্ত্রণার।

৬. নখকুনির সমস্যা হয়:

৬. নখকুনির সমস্যা হয়:

এ সমস্যায় প্রায় অনেকেই ভুগে থাকেন। সাধারণত হাইহিল জুতোর সামনের দিকটি ছড়ানো না হয়ে নৌকার মতো সরু হয়। উল্টোদিকে, আপনার আঙ্গুলগুলি খানিকটা চৌক আকারের হয়ে থাকে। ফলে সারা শরীরের ভার আঙ্গুলগুলিকে আরও বাইরের দিকে ঠেলতে থাকে। এতে নখকুনি হওয়ার সম্ভাবনা বাড়ে। অর্থাৎ পায়ের নখ, মূলত বুড়ো আঙ্গুলের নখ সোজা না বেড়ে ঢুকে যায় আঙ্গুলের মাংসের ভিতরে। আর এমনটা হলে কেমন যন্ত্রণা হতে পারে, তা নিশ্চয় আপনার জানা আছে।

হিল পড়লে এইবিষয়গুলি খেয়াল রাখুন:

হিল পড়লে এইবিষয়গুলি খেয়াল রাখুন:

হিল পড়ার নানারকম অপকারিতা অবশ্যই আছে। তাই বলে, হিল জুতোকে ফ্যাশন স্টেটমেন্ট থেকে একেবারে বাদ দিয়ে দেবেন না। বরং জেনে নিন কি কি সাবধানতা অবলম্বন করলে সুস্থ থেকেও হিলের ফ্যাশন বজায় রাখতে পারবেন।

প্ল্যাটফর্ম হিল পড়ুন...

প্ল্যাটফর্ম হিল পড়ুন...

যারা খুব উঁচু হিলের জুতো পড়েন তাঁরা প্লাটফর্ম হিল জুতোর কথা ভাবতে পারেন। কারণ তিন ইঞ্চি হিলের সঙ্গে এক ইঞ্চি প্লাটফর্ম হিল আপনার পায়ের পাতায় অস্বাভাবিক চাপ অনেকটাই কমাবে। পাশাপাশি দেবে হাইহিলের আনন্দ।

ভালো ব্র্যান্ডের জুতো পরুন:

ভালো ব্র্যান্ডের জুতো পরুন:

অনেকেই রাস্তাঘাটের যে কোনও জায়গা থেকেই নিজের পছন্দ মতো জুতো কেনেন। এতে সাশ্রয় হয় যদিও, কিন্তু শরীরের ক্ষতি হতে কেউ আটকাতে পারে না। আজকের দুনিয়ায় সুবিধা ও আরাম বাড়াতে নানারকমের জুতো তৈরি হয়। মাত্র কয়েকটি ব্র্যান্ডের জুতোই আপনার পায়ের পক্ষে সুবিধাজনক, সেই সঙ্গে ফ্যাসনেবলও। কাজেই জুতোর ব্যাপারে ব্র্যান্ড খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

যথাসাধ্য অল্প সময়ের জন্য হিল পরুন:

যথাসাধ্য অল্প সময়ের জন্য হিল পরুন:

যে সব অনুষ্ঠানে গিয়ে বেশ অনেকক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকতে হবে যেমন বুফেতে খাওয়া বা পার্টিতে নাচ করার সময় কখনই হিল পড়বেন না। এখন বহু রকমের জুতো এবং চপ্পল পাওয়া যায়, যা দেখতে বেশ স্টাইলিশ এবং দামও কম। তেমন কিছু পরতে পারেন। কারণ টানা অনেকক্ষণ হিল পরে থাকলে শরীরে নানা রকম সমস্যা দেখা দেয়। যেমন - মেরুদণ্ডে সমস্যা, পায়ে ব্যাথা, পায়ের পাতায় ব্যাথা, কোমরে ব্যাথা ইত্যাদি।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    Read more about: রোগ শরীর
    English summary

    হোক সে প্রতিদিনের কর্মক্ষেত্র বা ডিস্কের নাচের ফ্লোর অথবা আলো ঝলমলে বলিউডি অনুষ্ঠান, আজ আধুনিকার সাজের একটি অন্যতম অঙ্গ হল হাইহিল। কিন্তু হাইহিল ফ্যাশন স্টেটমেন্ট হলেও দীর্ঘদিন ধরে এর ব্যবহার বিভিন্ন রকমের অসুখ ডেকে আনতে পারে।

    The perfect, pointy pair of 4-inch heels can make any outfit, but with this style comes much suffering. High heels have the stigma of being bad for health and comfort, but this barely stops women from wearing them occasionally and often daily. Women often make sacrifices for foot fashion, but at what price? Studies have shown that these towering shoes can be costly in more ways than one, taking their toll on your spine, hips, knees, ankles and feet, while altering your posture and gait. We’ve done our research to help educate and convince women to take it down a notch, for their own good!
    Story first published: Saturday, October 14, 2017, 16:00 [IST]
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more