টি ব্যাগ=মৃত্যু নয় তো?

Subscribe to Boldsky

লিকার হোক, কী গ্রিন- সব ধরনের টি ব্যাগই কিন্তু অস্বাস্থ্যকর! কিন্তু কেন? সেই উত্তর খোঁজারই তো চেষ্টা চালানো হল বাকি প্রবন্ধ জুড়ে।

একাধিক রিসার্চ পেপার পর্যালোচনা করে দখা গেছে, যে উপকরণগুলি ব্যবহার করে সাধারণত টি ব্যাগ বানানো হয়, সেগুলি অনেক ক্ষেত্রেই শরীরের পক্ষে ভাল হয় না। যদিও বিষয়টা এখানেই শেষ হয়ে যায় না। সার্বিক চিত্রটা কিন্তু আরও বেশি ভয়ঙ্কর! তাই তো শরীরকে বাঁচাতে বাকি প্রবন্ধে চোখ রাখাটা একান্ত প্রয়োজন।

বাস্তব ১:

বাস্তব ১:

লক্ষ করে দেখবেন গরম জলে টি ব্যাগ ডোবানো মাত্র বুদ বুদের মতো কিছু একটা চায়ে ভাসতে শুরু করে। এমনটা কেন হয় জানেন? কারণ টি ব্যাগ বানানোর সময় এপিক্লোরোহাইড্রিন নামে একটি কার্সিনোজেনিক উপাদান ব্যবহার করা হয়, যা গরম জলের সংস্পর্শে আসা মাত্র বুদ বুদ তৈরি করতে থাকে। প্রসঙ্গত, কার্সিনোজেনিক উপাদান একেবারেই শরীরের পক্ষে ভাল হয় না। দেহে এমন উাপাদানের মাত্রা বাড়তে থাকলে ক্যান্সার রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বহুগুণে বৃদ্ধি পায়।

বাস্তব ২:

বাস্তব ২:

বিজ্ঞানিরা লক্ষ করে দেখেছেন বাজার যে সব টি ব্যাগগুলি পাওয়া যায়, তার বেশিরভাগই নাইলন অথবা পি ভি সি দিয়ে তৈরি হয়। এই উপাদানগুলি গরম জলের সঙ্গে মেশা মাত্র বিরূপ প্রক্রিয়া হতে শুরু করে। ফলে এমন চা খেলে শরীরের মারাত্মক ক্ষতি হয়। আর সব থেকে ভয়ের বিষয় হল খালি চোখে চায়ের এই পরিবর্তন বোঝা একেবারেই সম্ভব নয়। তাই এবার থেকে টি ব্যাগ ব্যবহারের আগে একবার অন্তত ভাববেন, আপনি চায়ের নামে বিষ খাচ্ছেন না তো!

বাস্তব ৩:

বাস্তব ৩:

চায়ের ফ্লেবার বাড়াতে অনেক ক্ষেত্রেই টি ব্যাগে নানাবিধ প্রস্টিসাইড ব্যবহার করা হয়, যা শরীরের পক্ষে একেবারেই ভাল নয়।

বাস্তব ৪:

বাস্তব ৪:

কাগজ দিয়ে টি ব্যাগ বানানোর সময় এপিক্সোরোফাইডিন নামে একটি উপাদান ব্যবহার করা হয়। এটি শরীরে বেশি মাত্রায় প্রবেশ করলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা একেবারে কমে যায়। ফলে নানাবিধ সংক্রমণে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বেড়ে যায়। এখানেই শেষ নয়, একাধিক গবেষণায় দেখা গেছে এপিক্সোরোফাইডিন বন্ধত্বের মতো রোগের প্রকোপ বাড়ানোর পিছনেও দায়ী থাকে। তাই সাবধান!

বাস্তব ৫:

বাস্তব ৫:

থার্মোপ্লাস্টিক, নাইলন, পলিপ্রোফাইলিন এবং প্লাস্টিকের মতো উপাদান কিন্তু একেবারেই শরীরের পক্ষে ভাল নয়। তাই এমন জিনিস দিয়ে বানানো টি ব্যাগ ব্যবহার করলে দেহের কী মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে, তা নিশ্চয় আর আলাদা করে বলে দিতে হবে না।

বাস্তব ৬:

বাস্তব ৬:

এখন প্রশ্ন হল চা খাওয়ার সব থেকে নিরাপদ রাস্তা তাহলে কী? এক্ষেত্রে চায়ের পাতার কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। তাই তো চা পানের নেশা রয়েছে যাদের, তারা সুস্থ থাকতে দয়াকরে চা পাতার কোনও সাবস্টিটিউট খোঁজার চেষ্টা করবেন না।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    English summary

    লিকার হোক, কী গ্রিন- সব ধরনের টি ব্যাগই কিন্তু অস্বাস্থ্যকর! কিন্তু কেন? সেই উত্তর খোঁজারই তো চেষ্টা চালানো হল বাকি প্রবন্ধ জুড়ে।

    Are tea bags harmful? Whether you prefer black tea or green, it is safer to get tea leaf home instead of buying tea bags. Of course, tea bags save you so much of time. You can simply dip them in water and your tea gets ready. But what if they are harmful?
    Story first published: Wednesday, June 21, 2017, 16:12 [IST]
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more