ঘর সাজানোর এই জিনিসগুলি যদি এই নিয়মগুলি মেনে রাখতে পারেন তাহলে ভাগ্য ফিরবে চোখের নিমেষে!

Subscribe to Boldsky

কম-বেশি ঘর সাজানোর চেষ্টা তো আমরা প্রায় সবাই করে থাকি। আর সেই উদ্দেশ্যে কখনও বুদ্ধের মূর্তি, তো কখনও নানা ধাঁচের ঘড়ি বা সোপিস জায়গা করে নেয় আমাদের ঘরের চার দেওয়ালে। কিন্তু জানেন কি এই সব সোপিস কী কী নিয়ম মেনে ঘরে রাখা উচিত?

মানে! ঘর সাজাতেও নিয়ম মানতে হবে? একেবারেই বন্ধু! তাই তো এই প্রবন্ধটি লেখার সিদ্ধান্ত নেওয়া। আসলে বাস্তুশাস্ত্রের উপর লেখা একাধিক বই অনুসারে বাড়ির চার দেওয়ালের অন্দরে থাকা প্রতিটা জিনিস কোনও না কোনওভাবে আমাদের উপর প্রভাব ফেলে থাকে। সে প্রভাব ভাল হতে পারে, হতে পারে মন্দও। আর ঠিক এই কারণেই তো বাড়িতে আনা প্রতিটি জিনিস বাস্তু নিয়ম মেনে রাখার প্রয়োজন রয়েছে।

আর যদি ধরুন কেউ এই সব নিয়ম না মানেন, তাহলে? সেক্ষেত্রে অর্থনৈতিক ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা যেমন বাড়বে, তেমনি হঠাৎ করে কোনও দুর্ঘটনাতেও আক্রান্ত হতে পারেন! শুধু তাই নয়, পরিবারে নানা ঝামেলা মাথা চাড়া দিয়ে ওঠার সম্ভাবনাও রয়েছে। তাই তো বলি বন্ধু, সুখে-শান্তিতে এবং নিরাপদে যদি থাকতে চান, তাহলে এই লেখাটি একবার পড়ে ফেলতে দেরি করবেন না যেন!

প্রসঙ্গত, এক্ষেত্রে যে যে বিষয়গুলি মাথায় রাখা একান্ত প্রয়োজন সেগুলি হল...

১. ঘড়ি এবং বাস্তু:

১. ঘড়ি এবং বাস্তু:

বাস্তুশাস্ত্র অনুসারে বাড়িতে থাকা প্রতিটি ঘড়ি গৃহস্তের অন্দরে পজেটিভ শক্তির মাত্রা এতটা বাড়িয়ে তোলে যে খারাপ শক্তি ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারে না। আর এমনটা হওয়ার কারণে কোনও বিপদ ঘটার সম্ভাবনা যেমন কমে, তেমনি পজেটিভ শক্তির প্রভাবে খারাপ সময় কেটে যেতেও সময় লাগে না। কিন্তু এত সব উপকার তখনই পাওয়া যায়, যখন ঠিক ঠিক জায়গায় ঘড়ি রাখা হয়। আর সেই ঠিক ঠিক জায়গাগুলি কোনগুলি? বাস্তু বিশেষজ্ঞদের মতে দরজার উপরে ভুলেও ঘড়ি টাঙানো উচিত নয়। এমনকি বাড়ির দক্ষিণ দিকের দেওয়ালে রাখলেও নানাবিধ ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই তো ঘড়ি রাখতে হবে বাড়ির পূর্ব দিকে। এমনটা করলে দেখবেন দুঃখ আপনার ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারবে না।

২. আয়না:

২. আয়না:

বাস্তুশাস্ত্র অনুসারে খারাপ শক্তির প্রভাব কমাতে আয়নার কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। কারণ ঠিক ঠিক নিয়ম মেনে বাড়িতে আয়না রাখলে খারাপ শক্তি প্রতিফলিত হয়ে বাড়ির বাইরে চলে যায়। ফলে গৃহস্থের অন্দরে নেগেটিভ শক্তির প্রভাব বাড়ার কোনও আশঙ্কা থাকে না বললেই চলে। প্রসঙ্গত, এই সব উপকার পেতে বাড়ির উত্তর-পূর্ব দিকে চৌকো নয়তো আয়তক্ষেত্রাকার আয়না ঝোলাতে ভুলবেন না যেন। তবে খেয়াল রাখবেন আয়নাটা যেন মাটি থেকে ৪-৫ ফুট উপরে টাঙানো হয়।

৩. ওয়াটার শোপিস:

৩. ওয়াটার শোপিস:

বাস্তু শাস্ত্রে জলের গুরুত্ব অনেক। কারণ বাস্তু দোষ কাটাতে এবং গৃহস্থে উপস্থিত খারাপ শক্তিরকে ঘর ছাড়া করে গুড লাককে রোজের সঙ্গী বানাতে জল বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে। এই কারণেই তো বাড়িতে ছোট একটা ওয়াটার ফল রাখলে অথবা অ্যাকুরিয়ামের ব্যবস্থা করলে দারুন উপকার পাওয়া যায়। তবে ভুলেও জল সম্পর্কিত শোপিস বা অ্যাকুরিয়াম বাড়ির উত্তর-পূর্ব দিকে রাখবেন না যেন!

৪. সাতটা ঘোড়া:

৪. সাতটা ঘোড়া:

অফুরন্ত আনন্দে থাকতে চান নাকি? সেই সঙ্গে অনেক অনেক টাকর মালিক হয়ে উঠতে বাড়িতে এমন একটি ছাবি রাখুন যাতে সাতটি ঘোড়া দৌড়াচ্ছে। আসল বাস্তু বিশেষজ্ঞদের মন এমন ছবি বাড়িতে রাখলে খারাপ শক্তির প্রভাব যেমন কেটে যায়, তেমনি সৌভাগ্য রোজের সঙ্গী হয়ে ওঠে। ফলে কর্মক্ষেত্রে থেকে অর্থনৈতিক স্টেটাস, সবেতেই উন্নতি লাভের সম্ভাবনা যায় বেড়ে। তবে প্রশ্ন হল, বাড়ির ঠিক কোন দিকে রাখতে হবে এমন ছবি? বাড়ির মূল ফটকের সামনে ছবিটা এমনভাবে রাখতে হবে যাতে ঘোড়ার মুখ বাড়ির বাইরের দিকে থাকে। তবে যদি এখানে ছবিটা রাখা সম্ভব না হয়, তাহলে কোনও জানলার উল্টো দিকেও রাখতে পারেন। কারণ এমনটা করলেও সমান উপকার পাওয়া যায়।

৫. মানি প্লান্ট:

৫. মানি প্লান্ট:

এমনটা বিশ্বাস করা হয় যে বাড়ির উত্তর-পূর্ব দিকে মানি প্লান্ট গাছ রাখলে অর্থনৈতিক অবস্থার উন্নতি ঘটতে সময় লাগে না। সেই সঙ্গে টাকা-পয়সা সংক্রান্ত নানা ঝামেলাও মিটে যায় চোখের পলকে। তাই তো বলি বন্ধু, অল্প সময়েই যদি অনেক অনেক টাকার মালিক হয়ে উঠতে চান, তাহলে এই গাছটির সঙ্গে বন্ধুত্ব পাতাতে ভুলবেন না যেন!

৬. কাঁচের পাত্র:

৬. কাঁচের পাত্র:

বাস্তুশাস্ত্রে এমনটা দাবি করা হয়েছে যে বাড়ার মূল দরজার সামনে একটা পরিষ্কার পাত্রে ফুল রাখলে পরিবারে যেমন সুখ-সমৃদ্ধির ছোঁয়া লাগতে সময় লাগে না। সেই সঙ্গে পজেটিভ শক্তির প্রভাব বেড়ে যাওয়ার কারণে পরিবারে সদস্যদের মধ্যে কোনও ধরনের সমস্যা বা কলহ মাথা চাড়া দিয়ে ওঠার আশঙ্কাও আর থাকে না। তবে খেয়াল করে ফুলগুলি শুকিয়ে যাওয়ার আগে বদলে ফেলতে ভুলবেন না যেন!

৭. মা লক্ষ্মীর ছবি:

৭. মা লক্ষ্মীর ছবি:

এমনটা বিশ্বাস করা হয় যে বাড়ির মূল ফটকের উপরে মা লক্ষ্মীর ছবি রাখলে গৃহস্থের অন্দরে খারাপ শক্তির প্রবেশ যেমন রদ হয়ে যায়, তেমনি মায়ের আশীর্বাদে অর্থনৈতিক উন্নতি ঘটতেও সময় লাগে না। সেই সঙ্গে পরিবারে সুখ-সমৃদ্ধির ছোঁয়াও লাগে।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    Read more about: ধর্ম বিশ্ব
    English summary

    Common Household Items That Bring Good Luck & The Correct Direction To Place Them

    Your house is a place which you dream of making perfect in every aspect. Vastu shastra, the ancient science of architecture and space- lends a lot of knowledge in this regard. Today, we can employ the rules and advice of Vastu to create positive energy in our homes.We bring most common items of home decor that will not only beautify your house, but also keeping them in the right location can boost good energy in the surroundings. Check out what these things are!
    Story first published: Monday, November 26, 2018, 11:10 [IST]
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more