For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

আপনার জন্মমাস অনুযায়ী ধারণ করুন রত্ন, জীবনে সমৃদ্ধি ও সৌভাগ্য আসবেই!

|

জীবনে সুখ-সমৃদ্ধি ও সৌভাগ্য আনতে রত্ন ধারণের রীতি বহু প্রাচীন৷ প্রাচীনকাল থেকেই এটি বিশ্বাস করা হয় যে, বার্থস্টোন পরলে সম্পদ এবং সৌভাগ্য ফিরে আসতে পারে। বার্থস্টোন আমাদের ভাগ্য এবং ভবিষ্যতের উপর বিশাল প্রভাব ফেলে। বার্থস্টোন থেকে জানা যায় যে, আপনার আসন্ন জীবনে কী ঘটতে চলেছে। বছরের প্রতিটি মাস অনুসারে জন্মগ্রহণকারী মানুষের জন্য, এই জন্মের পাথরগুলি সমস্ত ইচ্ছা পূরণে সহায়তা করে।

বিশ্বাস করা হয় যে, পঞ্চম শতাব্দীতে খ্রিস্টান পণ্ডিতরা অ্যারন-এর ব্রেস্টপ্লেটে বারোটি রত্ন, বছরের বারো মাস এবং বারোটি রাশির মধ্যে একটি সংযোগ তৈরি করেছিলেন। তাঁদের ধারণা অনুযায়ী, প্রতিটি রত্ন একটি নির্দিষ্ট মাস বা জ্যোতিষশাস্ত্রের শ্রেণীবিন্যাসের সঙ্গে যুক্ত থাকে। তাই একটি নির্দিষ্ট সময়ে এগুলি পরলে উপকার পাওয়া যাবে। ধীরে ধীরে, বছরের পর বছর ধরে তাদের সাথে বিভিন্ন মান যুক্ত হয়েছে। কোন পাথর কোন মাসের প্রতিনিধিত্ব করবে তা নিয়ে অনেক বিতর্ক ছিল, কিন্তু ১৯১২ সালে, সিয়ার্স সমস্ত বার্থস্টোন এবং তাদের প্রতিনিধিত্ব করা মাসগুলির একটি অফিসিয়াল তালিকা প্রকাশ করে। আসুন জেনে নেওয়া যাক, আপনার জন্মের মাস অনুযায়ী কোন পাথরটি আপনার জন্য শুভ এবং কোন পাথর আপনার ভাগ্য বদলে দিতে পারে।

জানুয়ারি বার্থস্টোন : গার্নেট

জানুয়ারি বার্থস্টোন : গার্নেট

জানুয়ারি মাসে যাদের জন্ম তাদের জন্য লাকি স্টোন হল গার্নেট। এটি সুরক্ষা, বিশ্বাস, ভালবাসা এবং প্রতিশ্রুতিকে বোঝায়। বলা হয় যে, এই স্টোন পরিধানকারীকে রক্ষা করে। এই রত্ন বিভিন্ন রঙের হতে পারে, তবে সবচেয়ে সাধারণ কালার হল লাল গার্নেট।

ফেব্রুয়ারি বার্থস্টোন : অ্যামিথিস্ট

ফেব্রুয়ারি বার্থস্টোন : অ্যামিথিস্ট

ফেব্রুয়ারিতে যাদের জন্ম তাদের লাকি স্টোন হল অ্যামিথিস্ট বা নীলা। বিশ্বাস করা হয় যে, এটি যেকোনও সম্পর্ককে শক্তিশালী করে এবং পরিধানকারীদের সেরা গুণগুলি বার করে। এই স্টোন বেগুনি রঙের বিভিন্ন শেডে পাওয়া যায়, যা আধিপত্য, ক্ষমতা, সম্পদ এবং রাজকীয়তার প্রতীক হিসেবে স্বীকৃত।

মার্চ বার্থস্টোন : অ্যাকুয়ামারিন

মার্চ বার্থস্টোন : অ্যাকুয়ামারিন

মার্চ মাসে জন্ম হলে অবশ্যই ধারণ করুন অ্যাকোয়ামারিন বা পান্না৷ এটি তারুণ্য, সততা এবং আশার বর্ণনা করে। সাধারণত এর রঙ হালকা নীল থেকে গাঢ় নীল পর্যন্ত হয়। এছাড়াও, অ্যাকুয়ামারিন শব্দটি দুটি ল্যাটিন শব্দ, 'অ্যাকুয়া' এবং 'মেরিনা' এর সমন্বয় থেকে উদ্ভূত হয়েছে, যার অর্থ 'জল' এবং 'সমুদ্র'।

এপ্রিল বার্থস্টোন : কোয়ার্টজ বা ডায়মন্ড

এপ্রিল বার্থস্টোন : কোয়ার্টজ বা ডায়মন্ড

এপ্রিল মাসে জন্মগ্রহণকারীদের জন্য লাকি স্টোন হল হীরা। এটি চিরন্তন প্রেমের প্রতীক হিসেবে পরিচিত। যদিও বর্ণহীন হীরা সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয়, তবে এটি বিভিন্ন রঙের পাওয়া যায়। বলা হয় যে, হীরা পরলে ধনসম্পদ প্রাপ্তি হয়, শারীরিক স্বাস্থ্যের উন্নতি হয় এবং আধ্যাত্মিক সুবিধা মেলে।

মে বার্থস্টোন : সবুজ পান্না

মে বার্থস্টোন : সবুজ পান্না

মে মাসের জাতকদের জন্য লাকি স্টোন হল সবুজ পান্না। এই সবুজ রঙের রত্ন পাথরটিকে প্রেম এবং পুনর্জন্মের প্রতীক হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

জুন বার্থস্টোন : পার্ল, আলেকজান্দ্রাইট এবং মুনস্টোন

জুন বার্থস্টোন : পার্ল, আলেকজান্দ্রাইট এবং মুনস্টোন

পার্ল, আলেকজান্দ্রাইট এবং মুনস্টোন, জুন মাসে জন্ম হলে এই রত্নগুলি অবশ্যই ধারণ করুন৷ মুক্তো বিশুদ্ধতা, আনুগত্য, উদারতা এবং সততার বর্ণনা করে বলে মনে করা হয়। মুনস্টোনও বিভিন্ন প্রকারে পাওয়া যায় এবং এটি বৃদ্ধি, অভ্যন্তরীণ শক্তি, সাফল্য এবং সৌভাগ্যের বর্ণনা করে। আলেকজান্দ্রাইট 'colour-changing gem' নামে পরিচিত, কারণ এটি আলোর উপর নির্ভর করে রঙ পরিবর্তিত হয়। এটি সৃজনশীলতা এবং কল্পনাকে প্রতিনিধিত্ব করে।

জুলাই বার্থস্টোন : রুবি

জুলাই বার্থস্টোন : রুবি

জুলাই মাসে জন্মগ্রহণকারীদের জন্য লাকি স্টোন হল রুবি এবং এটি দেখতে খুবই আকর্ষণীয় হয়, উজ্জ্বল লাল রঙের। এই স্টোন সাহস, জ্ঞান, ভালবাসা এবং প্যাশন-এর প্রতিনিধিত্ব করে। এই রত্নপাথর জীবন ও রক্তকে নির্দেশ করে এবং সাহস বাড়ায় বলে বিশ্বাস করা হয়। রুবি সবচেয়ে মূল্যবান রঙিন রত্ন পাথর হিসেবে পরিচিত।

অগস্ট বার্থস্টোন : পেরিডট এবং স্পাইনেল

অগস্ট বার্থস্টোন : পেরিডট এবং স্পাইনেল

যদি আপনি অগস্টে জন্মগ্রহণ করেন তাহলে পেরিডট এবং স্পাইনেল স্টোন ধারণ করতে পারেন। পেরিডট শক্তির প্রতীক। বিশ্বাস করা হয় যে, এটি পরিধানকারীর মধ্যে শক্তি এবং ক্ষমতাকে প্রজ্বলিত করে। অন্যদিকে, স্পাইনেল বিভিন্ন রঙের পাওয়া যায়। এটিকে আশা, পুনরুজ্জীবন এবং আনন্দ-এর রত্ন পাথর বলে মনে করা হয়। এটি পরিধানকারীকে যেকোনও ধরণের বাধা থেকে রক্ষা করে, এমনটাই বিশ্বাস।

সেপ্টেম্বর বার্থস্টোন : নীলা

সেপ্টেম্বর বার্থস্টোন : নীলা

আপনার জন্ম মাস সেপ্টেম্বর হলে আপনি নীলা পরিধান করতে পারেন। এটি সততা, আনুগত্য, বিশুদ্ধতা এবং বিশ্বাসের প্রতিনিধিত্ব করে। নীলা তৃতীয় চোখ এবং গলা চক্রকে সক্রিয় করে বলে মনে করা হয়, যার ফলে কোনও ব্যক্তি আত্ম-চেতনার গভীর স্তরে প্রবেশ করতে পারে।

অক্টোবর বার্থস্টোন : ট্যুরমেলিন এবং ওপাল

অক্টোবর বার্থস্টোন : ট্যুরমেলিন এবং ওপাল

অক্টোবরে জন্ম নেওয়া ব্যক্তিরা ট্যুরমেলিন এবং ওপাল পরিধান করতে পারেন। ট্যুরমেলিন সমবেদনা, শান্তি, আত্মবিশ্বাস, বিশ্বস্ততা এবং নির্ভরযোগ্যতাকে প্রতিনিধিত্ব করে। এর সবচেয়ে সাধারণ কালার হল গোলাপী। অন্যদিকে, একটি ওপাল-এই অসংখ্য রঙ দেখা যায় এবং এটি একজন ব্যক্তির শৈল্পিক দক্ষতা বৃদ্ধির জন্য পরিচিত। বিশ্বাস করা হয় যে, এটি পরিধানকারী জীবনে সুস্বাস্থ্য, সম্পদ এবং সৌভাগ্য বয়ে আনে।

নভেম্বর বার্থস্টোন : সিট্রিন এবং পোখরাজ

নভেম্বর বার্থস্টোন : সিট্রিন এবং পোখরাজ

নভেম্বরে জন্ম নেওয়া ব্যক্তিদের জন্য লাকি স্টোন হল সিট্রিন এবং পোখরাজ। সিট্রিন রত্ন পাথর ব্যবসায়ীদের জন্য বেশ মূল্যবান, কারণ এটি সাফল্য এবং সমৃদ্ধির প্রতিনিধিত্ব করে। এর রঙ হলুদ থেকে বাদামী কমলা পর্যন্ত। এছাড়াও, পোখরাজ সূর্য দেবতার সাথে যুক্ত এবং এটি পরিধানকারীকে নিরাময় ও রক্ষা করে বলে মনে করা হয়।

ডিসেম্বর বার্থস্টোন : নীল পোখরাজ, তানজানাইট, জিরকন এবং টারকোয়েজ

ডিসেম্বর বার্থস্টোন : নীল পোখরাজ, তানজানাইট, জিরকন এবং টারকোয়েজ

ডিসেম্বরে জন্মগ্রহণকারীদের জন্য অনেক লাকি স্টোন আছে, যেমন - নীল পোখরাজ, তানজানাইট, জিরকন এবং টারকোয়েজ। নীল পোখরাজ সৌন্দর্য, দীর্ঘায়ু এবং বুদ্ধিমত্তার প্রতিনিধিত্ব করতে পরিচিত। তানজানাইটও দীর্ঘ জীবন এবং বিচারের জন্য পরিচিত। এটা জ্ঞান, সত্য, মর্যাদা এবং আধ্যাত্মিক জ্ঞান প্রচার করে বলে মনে করা হয়। জিরকন স্থিতিশীলতা, বিশুদ্ধতা ফিরিয়ে আনতে এবং চাপ দূর করতে পরিচিত। আর, টারকোয়েজ আত্ম-উপলব্ধি, বন্ধুত্বকে ঠিক রাখতে পরিচিত।

English summary

Birthstones by Month : History, Facts, Colours & Meanings in Bengali

Since ancient times, it has been believed that wearing birthstones can bring wealth and good fortune. Let’s check out which birthstone is meant for you.
X