কোন কোন রাশির জাতকরা খুব কর্মঠ এবং সফল হন জানা আছে?

Subscribe to Boldsky

সফলতার ফর্মুলা কী? ভারতের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি এপিজে আবদুল কালামকে এই প্রশ্নটা করা হলে তিনি প্রায়শই একটা কথা বলতেন, "জীবনে তারাই সফল হন, যারা প্রতিশ্রম করেন, ঘাম ঝরান। কারণ সফল হতে গেলে শ্রমের কোনও বিকল্প নেই বললেই চলে।" তাই তো এই প্রবন্ধে সেইসব ইংরেজি রাশিগুলির উল্লেখ করা হল, যাদের জাতক-জাতিকারা এতটাই পরিশ্রমি হন যে সফলতা এদের "কাদম চুমতে" সময়ই নেয় না।

ফলের চিন্তা না করে কেবল পরিশ্রম এবং অধ্যবসায়ের দমে সফল হওয়ার স্বপ্ন দেখেন যারা, তাদারে মধ্যে এই রাশির জাতকেরা একেবারে প্রথম স্থানে থাকেন। কারণ চারিত্রিক নানা দিক বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে এমন মানুষেরা নিজেদের স্বপ্ন পূরণের নেশায় এতটাই মত্ত থাকেন যে কোনও মাত্রায় পরিশ্রম করতে এরা প্রস্থুত থাকেন। তাই তো সব রাশিরই জাতকদের এই প্রবন্ধটি পড়া উচিত। আপনি হয়তো প্রশ্ন করতে পারেন, আমি যদি এই প্রবন্ধে আলোচিত রাশিগুলির কোনওটির জাতক না হই, তাহলে কোনই বা সময় নষ্ট করে পড়বো এই লেখাটি! ঠিক বলেছেন, তবে কী জানেন, স্মার্ট প্লেয়ার হল তারাই যারা নিজেরা হয়তো এই রাশির অন্তর্ভুক্ত নয়, কিন্তু যারা কর্মঠ, তাদের সঙ্গে থেকে নিজের কাজটি কিছুটা হলেও উতড়ে দিতে পারেন। যেমন ক্যান্সার রাশির কথাই ধরুন। তারা অতটা কর্মঠ নয়, কিন্তু এই প্রবন্ধে আলোচিত রাশিগুলির মানুষদের সঙ্গে তারা সব সময় সম্পর্ক স্থাপন করে থাকেন, এতে ক্যান্সার রাশির জাতকটির নিজের কাজে বাঁধা আসার আশঙ্কা একেবারে কমে যায়। এবার বুঝেছেন তো কেন সবারই এই প্রবন্ধটি পড়া উচিত।

এখন প্রশ্ন হল কোন কোন রাশির জাতকরা বেজায় কর্মঠ হন?

১. ক্যাপ্রিকন বা মকর:

১. ক্যাপ্রিকন বা মকর:

এই বিষয়ক নানা বই এবং দস্তাবেজ দেখে একটা বিষয় পরিষ্কার হয়ে গেছে যে ১২ টি রাশির মধ্যে মকর রাশির জাতক এবং জাতিকারা বেজায় পরিশ্রমি হন। একবার কোনও কিছু করার কথা ভেবে নিলে যে কোনও প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে সেই লক্ষে পৌঁছাতে এরা এতটাই বদ্ধপরিকর হন যে জীবনে সফলতার স্বাদ পেতে এদের একেবারেই সময় লাগে না। আপাদ দৃষ্টিতে ক্যাপ্রিকনদের খুব অলস মনে হলেও আদতে কিন্তু এরা আগুনের গোলা। অর্থাৎ এক কথায় এরা কাজ প্রিয় মানুষ। নিজের পছন্দ মতো কাজ পেয়ে গেলে বাকি জগতকে ভুলে যেতেও এমন মানুষদের সময় লাগে না।

২. অ্যাকিউয়ারিয়াস বা কুম্ভরাশি:

২. অ্যাকিউয়ারিয়াস বা কুম্ভরাশি:

বড় বড় স্বপ্ন দেখা এবং সেই স্বপ্নকে পূরণ করার জন্য পাগলের মতো পরিশ্রম করাই এই রাশির জাতক-জাতিকাদের প্রধান চরিত্র। তাই তো খেয়াল করে দেখবেন এই বিশ্বের প্রথম ২০ জন সফল মানুষদের মধ্যে কুম্ভরাশির এক-দুজনকে পেয়েই যাবেন। প্রসঙ্গত, একটাই খারাপ দিক রয়েছে এই রাশির জাতক-জাতিকাদের মধ্যে, আর তা হল এরা স্বপ্ন পূরণের নেশায় এমন মশগুল থাকেন যে কোনও কোনও সময় এতটা ঝুঁকি নিয়ে ফেলেন যে মারাত্মক কিছু ক্ষতি হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে।

৩. পিসেস বা মীনরাশি:

৩. পিসেস বা মীনরাশি:

স্বপ্নালু মনের অধিকারি হয় এই রাশির অধিকারীরা। আসলে জ্ঞানি মানুষেরা ঠিকই বলেন, স্বপ্নই হল সেই চালিকা শক্তি, যা আমাদের সফল হওয়ার পথে এগিয়ে নিয়ে চলে। আর একথা যে কতটা ঠিক, তা মীনরাশির জাতক-জাতিকাদের দেখলেই প্রমাণ হয়ে যায়। তবে একটাই খারাপ দিক রয়েছে এই রাশির। কী? এরা যতটা উৎসাহের সঙ্গে কোনও কাজ শুরু করেন, ততটা উৎসাহ কাজ শেষ হওয়া পর্যন্ত রাখতে পারেন। ফলে অনেক সময়ই অসম্পর্ণ থেকে যায় তাদের মনবাসনা। তবে সিংহভাগ ক্ষেত্রেই এরা নিজেরে মন ইচ্ছাকে বাস্তিবায়িত করেই থাকেন।

৪. অ্যারিস বা মেষরাশি:

৪. অ্যারিস বা মেষরাশি:

খেয়াল করে দেখবেন মহিষেরা শারীরিক দিক থেকে যেমন শক্তিশালী হয়, তেমনি মারাত্মক পরিশ্রমও করে পারে। মেষরাশির জাতকদের চরিত্রও অনেকটা মহিষের মতোই হয়। একবার কোনও কিছু করার সিদ্ধান্ত নিয়ে নিলে সারা দুনিয়ে ভুলে তারা সেই স্বপ্নকে বাস্তবিয়ত করার কাজেই লেগে পারেন। তবে কোনও কোনও সময় এরা নিজ বাসনাকে পূরণ করার চক্করে এতটাই অন্ধ হয়ে যান যে ব্য়াক্তিগত জীবনের সুখ-দুঃখও এদের ছুঁতে পারে না।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    Read more about: বিশ্ব
    English summary

    এই প্রবন্ধে সেইসব ইংরেজি রাশিগুলির উল্লেখ করা হল, যাদের জাতক-জাতিকারা এতটাই পরিশ্রমি হন যে সফলতা এদের "কাদম চুমতে" সময়ই নেয় না।

    Do you know that there are certain zodiac signs, the individuals of which can go to any extent to be successful? We have listed out four such zodiac signs, the individuals of which are by far known to be the most hardworking.
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more