নিজের ভাল চান তো ভুলেও এই জিনিসগুলি কাউকে উপহার হিসেবে নেবেন না!

Written By:
Subscribe to Boldsky

কাউকে উপহার দিলে যে শুধু খুশির মাত্রা বাড়ে, এমন নয়। সেই সঙ্গে পজেটিভিটি এবং নেগেটিভিটি শক্তিরও আদান প্রদান ঘটে। আসলে সহজ কথায় বললে যখন আমাদের কেউ উপহার দেয়, তখন যদি সে খুশি থাকে তাহলে তার খুশির প্রভাবে যে উপহার নিচ্ছে তার জীবনও সুন্দর হয়ে ওঠে। কিন্তু যদি মন যদি খারাপ যাকে, তাহলে কিন্তু একেবারে উল্টো ঘটনা ঘটে। শুধু তাই নয়, বাস্তুশাস্ত্র অনুসারে এমন কিছু জিনিস রেয়েছে, যা উপহার হিসেবে দিলে প্রাপকের যেমন নানাবিধ ক্ষতি হওযার আশঙ্কা থাকে, তেমনি যিনি দিচ্ছেন, তারও মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। তাই তো সবারই এই প্রবন্ধটিতে চোখ একান্ত প্রয়োজন। কারণ এই লেখায় সেই সব জিনিসগুলির উপর আলোকপাত করার চেষ্টা করা হল, যা ভুলেও গিফট হিসেবে দেওয়া উচিত নয়।

প্রসঙ্গত, এক্ষেত্রে যে যে জিনিসগুলি থেকে দূরত্ব বজায় রাখা জরুরি, সেগুলি হল...

১. টাওয়াল এবং রুমাল:

১. টাওয়াল এবং রুমাল:

বাস্তু শাস্ত্র মতে এমন ধরনের জিনিস উপহার হিসেবে কখনও দেওয়া উচিত নয়। কারণ টাওয়াল এবং রুমাল উপহার দিলে যিনি উপহার দিচ্ছেন তার সঙ্গে প্রাপকের নানা বিষয়ে ঝামেলা লাগার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে আরও সব ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। তাই এবার থেকে টাওয়াল এবং রুমাল না উপহার দিসেবে দেবেন, না নেবেন।

২. জল রয়েছে এমন জিনিস:

২. জল রয়েছে এমন জিনিস:

অ্যাকোরিয়াম, ফিশ বোল, ফাউন্টেন প্রভৃতি জিনিস আনেক সময়ই আমরা, আমাদের ভালবাসার মানুষকে দিয়ে থাকি। এমনটা করা কিন্তু একেবারেই উচিত নয়। কেন জানেন? কারণ এমন উপহার দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আপনার গুড লাক প্রাপকের কাছে চলে যায়। শুধু তাই নয়, যিনি এমন উপহার দিচ্ছেন তার অর্থনৈতিক ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কাও বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে কর্মক্ষেত্রে নানাবিধ সমস্যার সম্মুখিন হওয়ার সম্ভাবনাও বাড়ে।

৩. ভগবানের ছবি এবং স্ট্যাচু:

৩. ভগবানের ছবি এবং স্ট্যাচু:

নানা উপলক্ষ্যে আমরা অনেক সময়ই গৌতম বুদ্ধ বা গনেশ ঠাকুরের ছবি বা মূতি কাউকে উপহার দিয়ে থাকি। কিন্তু বাস্তু শাস্ত্র বলছে এমন উপহার দেওয়া একেবারেই উচিত নয়। কারণ ভাগবানের মূতি যাকে উপহার হিসেবে দিচ্ছেন তিনি হয়তো জানেন না সেই মূর্তি বা ছবিকে কীভাবে রাখতে হয়। ফলে যে দিচ্ছে এবং যে নিচ্ছে, উভয়েরই খারাপ হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। প্রসঙ্গত, কখনও যদি আপনি এমন জিনিস গিফ্ট হিসেবে পান তাহলে যেভাবে ভগবানের মূর্তি বা ছবিকে রাখতে হয়, সেভাবে রাখবেন। ভুলেও অযত্ন করবেন না।

৪. কাজ সম্পর্কিত কোনও উপাহার:

৪. কাজ সম্পর্কিত কোনও উপাহার:

ধরুন আপনি যদি একজন লেখক হন, তাহলে কখনও কাউকে পেন, বই বা ঐ জাতীয় কিছু উপহার হিসেবে দেবেন না। এতে আপনার কাজের ক্ষতি হবে। সহজ কথায় আপনি যে কাজ করেন, সেই সম্পর্কিত কোনও উপহার ভুলেও অন্যকে দেবেন না।

৫. ধারালো কিছু:

৫. ধারালো কিছু:

অনেকেই কারুকার্য করা তরোয়াল বা ছুরি উপহার দিয়ে থাকেন। বিশেষত সামুরাই সোর্ডকে উপহার হিসেবে দিতে বা এমন গিফ্ট পেতে অনেকেই পছন্দ করেন। কিন্তু বাস্তুশাস্ত্র অন্য কথা বলে। এই শাস্ত্র মতে এমন উপহার কাউকে দিলে তার বাড়িতে নেগেটিভ এনার্জির প্রভাব বেড়ে যায়। এমন বাজে প্রভাব থেকে যিনি উপহার দিচ্ছেন তিনিও বাঁচতে পারেন না। ফলে উভয়ের জীবনই অখুশিতে ভরে যায়। তাই কখনও ধারালো কিছু উপহার হিসেবে দেওয়ার বা নেওয়ার ভুল করবেন না।

৬. ঘড়ি:

৬. ঘড়ি:

ভুলেও কাউকে ঘড়ি উপহার দেওয়া উচিত নয়। কারণ বাস্তু বিশেষজ্ঞদের মতে কউকে এমন জিনিস উপহার দিলে তাঁর আয়ু কমে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। সেই সঙ্গে গৃহস্থের অন্দরে অশুভ শক্তির মাত্রা বেড়ে যাওয়ার কারণে একের পর এক খারাপ ঘটনা ঘটার সম্ভাবনাও যায় বেড়ে। তাই সাবধান বন্ধু সাবধান!

৭. স্টিলের কোনও জিনিস:

৭. স্টিলের কোনও জিনিস:

এমনটা বিশ্বাস করা হয় যে স্টিলের তৈরি কোনও জিনিস, তা বাসন-পত্র হতে পারে, হতে পারে কোনও শো-পিসও, যদি উপহার হিসেবে দেওয়া হয়, তাহলে যিনি গিফট দিচ্ছেন তার পিছু নেয় ব্যাড লাক। ফলে সম্মানহানীর আশঙ্কা তো থাকেই, সেই সঙ্গে আরও নানাবিধ ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কাও যায় বেড়ে।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    Read more about: বিশ্ব
    English summary

    Gifts That Should Not Be Given According To Vastu Shastra

    There are some objects that when gifted, bring immense positive results to both the receiver and the giver. There are also things that should never be gifted as they bring negativity and bad luck to both the parties involved.
    Story first published: Saturday, May 26, 2018, 12:57 [IST]
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more