সাবধান: এই জেমস্টোনগুলি এক সঙ্গে পরলে কিন্তু মহাবিপদ!

Subscribe to Boldsky

বৈদিক অ্যাস্ট্রোলজির উপর লেখা একাধিক বই অনুসারে আমাদের প্রতিটা দিন কোনও না কোনওভাবে নবগ্রহদের দ্বারা প্রভাবিত হয়ে থাকে। আর এই কারণ কোনও দিন আমরা পাই সুখের সন্ধান, তো কোনও দিন দুঃখে ভরে যায় সারাটা দিন। এমনকী কর্মক্ষেত্র থেকে পারিবারকি জীবনও গ্রহদের ভাল-মন্দ প্রভাব থেকে বাঁচতে পারে না। আর এই কারণেই তো নানাবিধ জেমস্টোনের প্রয়োজনীয়তাকে এই ২১ শতকেও উড়িয়ে দেওয়া সম্ভব নয়।

জ্যোতিষ বিশেষজ্ঞদের মতে জন্ম কুষ্টি এবং গ্রহ-নক্ষত্রের অবস্থান অনুযায়ী ঠিক ঠিক স্টোন পরলে জীবনের প্রতিটি দিন যেমন আনন্দে ভরে ওঠে, তেমনি কোনও ধরনের বিপদ ঘটার আশঙ্কাও যায় কমে। শুধু তাই নয়, কর্মক্ষেত্রও তুমুল সফলতা লাভের পথ প্রশস্ত হয়। তাই তো বলি বন্ধু এ জীবনকে যদি আনন্দে ভরিয়ে তুলতে হয়, তাহলে জেমস্টোনের উপর ভরসা রাখতে ভুলবেন না যেন! তবে এক্ষেত্রে একটা বিষয় মাথায় রাখা একান্ত প্রয়োজন। তা হল ঠিক ঠিক নিয়ম না মেনে যদি স্টোন না পরেন, তাহলে কিন্তু বেজায় বিপদ। যেমন ধরুন বিশেষজ্ঞদের মতে বেশ কিছু স্টোন রয়েছে যা এক সঙ্গে পরা একেবারেই উচিত নয়। কারণ এমনটা করলে কোনও উপকার তো মেলেই না, উল্টে নানাবিধ বিপদের মারে জীবন দুর্বিষহ হয়ে উঠতে সময় লাগে না।

এখন প্রশ্ন হল কোন কোন স্টোন ভুলেও একসঙ্গে পরা চলবে না?

১. নীলা:

১. নীলা:

জ্যোতিষ বিশেষজ্ঞদের মতে এই স্টোনটি হল সবথেকে শক্তিশালী জেম স্টোন। আর এই পাথরটির উপর শনি দেবের প্রভাব বেশি থাকে। তাই তো নীলা পরলে ভুলেও সূর্য, চন্দ্র এবং মঙ্গল গ্রহের সঙ্গে যোগ রয়েছে এমন স্টোন পরতে মানা করা হয়। তাই তো নীলা ধারণ করলে ভুলেও রুবি, মুক্ত এবং পলা পরা উচিত নয়। প্রসঙ্গত, এমনটা বিশ্বাস করা হয় যে শুধুমাত্র নীলা পরলেই সবথেকে বেশি উপকার পাওয়া যায়। তাই তো নীলার সঙ্গে অন্য কোনও পাথর পরতে মানা করা হয়।

২. রুবি:

২. রুবি:

এই জেমস্টোনটির রুলিং প্ল্যানেট হল সূর্য। তাই তো যাদের এই পাথরটি পরার প্রয়োজন রয়েছে, তারা ভুলেও হিরা এবং নীলা পরবেন না যেন। কারণ সূর্যের প্রতিপক্ষ হল শনি এবং শুক্র গ্রহ। তাই তো রুবির সঙ্গে হিরা এবং নীলা পরলে মানসিক শান্তি দূরে পালায়। সেই সঙ্গে অ্যাংজাইটি এবং স্ট্রেসও রোজের সঙ্গী হয়ে ওঠে।

৩. পান্না:

৩. পান্না:

জেমস্টোনের জগতে অন্যতম শক্তিশালী স্টোন হল এটি, যার উপর বুধ গ্রহের প্রভাব বেশি থাকে। কারণ এই পাথরটির রুলিং প্ল্যানেট হল বুধ। আর ঠিক এই কারণেই পান্নার সঙ্গে চাঁদ এবং মঙ্গলকে প্রভাবিত করে এমন স্টোন পরতে মানা করা হয়। তাই যারা পান্না পরবেন, তারা ভুলেও মুক্ত এবং পলা পরবেন না যেন! আর যদি এই নিয়মটি না মানেন, তাহলে কিন্তু বেজায় বিপদ! কারণ সেক্ষেত্রে শরীর যেমন ভাঙতে শুরু করবে, তেমনি ব্যাড লাক পিছু নেবে। ফলে সুখের ঝাঁপি খালি হতে কিন্তু সময় লাগবে না। তাই সাবধনা বন্ধু সাবধান!

৪. মুক্ত:

৪. মুক্ত:

মনকে শান্ত রাখতে মুক্তোর কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। আসলে এই প্রকৃতিক উপাদানটির উপর চাঁদের প্রভাব খুব বেশি মাত্রায় থাকে। তাই তো মুক্ত পরা মাত্র রাগের মাত্রা কমতে শুরু করে। সেই সঙ্গে মন-মেজাজও চেঙ্গা হয়ে ওঠে। তবে মুক্তর সুফল যদি পেতে হয়, তাহলেও ভুলেও এর সঙ্গে ক্যাটস আই পরবেন না যেন! আসলে ক্যাটস আইয়ের রুলিং প্ল্যানেট হল রাহু এবং কেতু। আর এরা হল চাঁদের প্রতিপক্ষ। তাই তো মুক্তর সঙ্গে ক্যাটস আই পরতে মানা করা হয়।

৫. পলা:

৫. পলা:

যাদের মঙ্গলের দোষ থাকে, তাদেরই সাধারণত পলা পরার পরামর্শ দেওয়া হয়ে থাকে। কারণ এই স্টোনটির রুলিং প্ল্যানেট হল মঙ্গল। আর মঙ্গলের প্রতিপক্ষ হল বুধ, শুক্র, শনি, রাহু এবং কেতু। এই কারণেই তো যাদের পলা পরার প্রয়োজন রয়েছে, তারা ভুলেও পান্না, হিরা, নীলা এবং ক্যাটস আই পরবেন না যেন! কারণ এমনটা করলে নানাবিধ বিপদ ঘটার আশঙ্কা যেমন বেড়ে যাবে, তেমনি মানসিক শান্তিও দূরে পালাবে।

৬. হলুদ নীলকান্তমণি:

৬. হলুদ নীলকান্তমণি:

মারাত্মক অর্থনৈতিক সমস্যায় ভুগছেন নাকি? তাহলে একবার কোনও বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিয়ে হলুদ নীলকান্তমণি পরতে পারেন। কারণ বৈদিক অ্যাস্ট্রোলজির উপর লেখা একাধিক বই অনুসারে যে কোনও ধরনের অর্থনৈতিক সমস্যা মেটাতে এই স্টোনটির কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। তবে এক্ষেত্রে একটা বিষয় মাথায় রাখতে হবে। তা হল এই স্টোনটির রুলিং প্ল্যানেট হল বৃহষ্পতি, আর এই গ্রহটির প্রতিপক্ষ হল বুধ, শুক্র এবং শনি। তাই তো হলুদ নীলকান্তমণি পরলে কোনও মতেই পান্না, হিরা এবং নীলা পরা উচিত নয়।

৭. হিরা:

৭. হিরা:

মহিলাদের মধ্যে এই স্টোনটির জনপ্রিয়তা আকাশ ছোঁয়া। কিন্তু আপনাদের জানা আছে কি হিরা পরলে ভুলেও রুবি, মুক্ত এবং হলুদ নীলকান্তমণি পরা উচিত নয়। কারণ হিরার রুলিং প্ল্যানেট হল শুক্র, আর এই গ্রহটির প্রতিপক্ষ হল সূর্য, চাঁদ এবং বৃহস্পতি। তাই তো হিরার সঙ্গে এই বিশেষ স্টোনগুলি পরতে মানা করা হয়। আর যদি কেউ এই নিয়মটি না মানেন, তাহলে কিন্তু মারাত্মক শরীর খারাপ হওয়ার আশঙ্কা যাবে বেড়ে। সেই সঙ্গে সুখ-শান্তিও দূরে পালাবে।

৮. ক্যাটস আই:

৮. ক্যাটস আই:

এই স্টোনটির উপর কেতুর প্রভাব খুব বেশি থাকে। তাই তো ক্যাটস আই পরলে কেতুর প্রতিপক্ষ হিসেবে পরিচিত সূর্য এবং চন্দ্র যে যে স্টোনের রুলিং প্ল্যানেট, সেইসব পাথর পরতে মানা করা হয়। তাই তো ক্যাটস আইয়ের সঙ্গে ভুলেও রুবি এবং মুক্ত পরা ভুল কাজটি করবেন না যেন!

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    Read more about: বিশ্ব
    English summary

    Beware: Wearing the wrong set of gemstones could land you in trouble!

    We all love gemstones --- apart from making a huge fashion statement, gemstones are also said to have healing properties and are often recommended by Astrologers to reduce the malefic affects of certain planets. However, do you know that there are many gemstones that should in fact never be worn together? Read on to know more...
    Story first published: Monday, August 20, 2018, 12:45 [IST]
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more