For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

পুজোয় নতুন জুতো পরুন নিশ্চিন্তে, পায়ের ফোস্কাকে করুন টা টা! কিন্তু কী ভাবে? রইল টিপস

|

পুজোয় নতুন পোশাকের সঙ্গে ম্যাচিং করে নতুন জুতো তো পরবেন। কিন্তু কিছুক্ষণ হাঁটার পরই ফোস্কার জ্বালায় খোঁড়াতে খোঁড়াতে ঠাকুর দেখা, খুবই অস্বস্তিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়। সাধারণত গোড়ালির পিছন দিকে, কড়ে আঙুলের পাশে বা বুড়ো আঙুলে ফোস্কা পড়ে। আর, একবার ফোস্কা পড়লে পরবর্তী ২-৩ দিন হাঁটা চলা করাটাই মুশকিল হয়ে পড়ে।

তবে কিছু ঘরোয়া উপায় মেনে চললে পুজোর পাঁচ দিন ফোস্কা ছাড়াই নিশ্চিন্তে কাটাতে পারবেন। তাই নতুন জুতোর ফোস্কা বাঁচিয়ে কী ভাবে পুজো কাটাবেন, আসুন জেনে নিই।

১) ডিওডোরেন্ট

১) ডিওডোরেন্ট

নতুন জুতো পরার পর সাধারণত গোড়ালি ও আঙুলেই ফোস্কা পড়তে দেখা যায়। তাই জুতো পরার আগে পায়ের হিল বা গোড়ালি এবং আঙুলের উপর ডিওডোরেন্ট বা বডি স্প্রে লাগিয়ে নিন। এতে আপনার জুতো এবং পায়ের মধ্যে ঘর্ষণ হবে না, ফলে ফোস্কা পড়ার হাত থেকেও বাঁচবেন।

২) পেট্রোলিয়াম জেলি

২) পেট্রোলিয়াম জেলি

পায়ের পাতায় খুব ভাল করে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে। তা ছাড়া যে জায়গাগুলিতে ফোস্কা পড়ে যেমন গোড়ালি, পায়ের আঙুল - সেই সব জায়গায় পুরু করে পেট্রোলিয়াম জেলি অথবা ভেসলিন লাগিয়ে তবেই জুতো পরুন।

৩) মোজা পরুন

৩) মোজা পরুন

ফোস্কা থেকে বাঁচার আরেকটি উপায় হল জুতোর সঙ্গে মোজা পরা। এক জোড়া মোটা সিন্থেটিক মোজা পরে তারপর জুতো পরুন। এতে জুতোর সঙ্গে ত্বকে ঘষা লাগবে না এবং এর ফলে ফোস্কা পড়ারও ভয় থাকবে না।

৪) ব্যান্ড-এড

৪) ব্যান্ড-এড

পায়ের যে অংশগুলিতে ফোস্কা পড়ার ঝুঁকি থাকে, সেখানে আগে থেকেই ব্যান্ড এড লাগিয়ে রাখতে পারেন। এছাড়া, জুতোর ভিতরে ও সামনে নরম স্পঞ্জ ঢুকিয়ে দিলেও ফোস্কার ঝুঁকি কমে।

৫) বেবি পাউডার

৫) বেবি পাউডার

বেবি পাউডারও আপনার কাজে আসতে পারে। নতুন জুতোয় কিছুটা বেবি পাউডার ছড়িয়ে দিন। এতে জুতোর ভিতর মসৃণ ও নরম হবে এবং পায়ে ফোস্কা পড়ার ভয়ও থাকবে না।

৬) নারকেল তেল

৬) নারকেল তেল

নতুন জুতো পরার আগে পায়ে ভাল করে সর্ষে তেল বা নারকেল তেল মেখে নিন। এতে ফোস্কা পড়ার ঝুঁকি অনেকটাই কমবে।

English summary

6 Ways to Treat and Prevent Shoe Bites and blisters

Here are some hacks to prevent shoe bites and blisters. Read on.
X
Desktop Bottom Promotion