For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

ফ্রিজ পরিষ্কার করতে নাজেহাল? রইল কিছু সহজ টিপস

|

ফ্রিজ পরিষ্কার করতে হবে, ভাবলেই গায়ে জ্বর এসে যায়! ফ্রিজের অত জিনিস সরানো, আবার সবকিছু ঠিক ঠিক জায়গায় রাখতে গিয়ে মাথা খারাপ হওয়ার জোগাড় হয়। কিন্তু ফ্রিজ পরিষ্কার না করলেও উপায় নেই। আমাদের ব্যস্ত জীবনে ফ্রিজই ভরসা! অফিস করে বাড়ি ফিরে রান্না করতে সবসময় ভাল লাগে না, তাই আগে থেকে খাবার বানিয়ে অনেকেই ফ্রিজে রেখে দেন। সারা সপ্তাহের বাজার স্টোর করা থাকে ঠান্ডাঘরে। আর অনেকদিন ফ্রিজ পরিষ্কার না করলে দুর্গন্ধ আসবে, জীবাণু ছড়াবে। তাই ফ্রিজ পরিষ্কার রাখতেই হবে।

ফ্রিজ পরিষ্কার করা কিন্তু খুব একটা কঠিন কাজ নয়! কিছু সহজ টিপস মেনে চললে ফ্রিজের নোংরা সহজেই পরিষ্কার করা যায়। দেখে নিন টিপসগুলি -

প্রথম ধাপ

প্রথম ধাপ

ফ্রিজ পরিষ্কার করার আগে প্লাগ খুলে রাখুন। দেখে নেবেন যাতে কোনও ভাবেই বিদ্যুৎ সংযোগ না থাকে। তারপর কোমর বেঁধে নেমে পড়ুন পরিষ্কারে। প্রথমে আপনাকে ফ্রিজ খালি করতে হবে। সবার ফ্রিজেই কিছু খাবার, সবজি পড়ে থাকে। যেগুলো খাবার অযোগ্য এবং ফ্রিজের ভেতরের যাবতীয় ময়লা একটি প্লাস্টিক বা গার্বেজ ব্যাগে ভরে ডাস্টবিনে ফেলে দিন।

দ্বিতীয় ধাপ

দ্বিতীয় ধাপ

খাবার ছাড়াও জ্যাম, বাটার, চকোলেট, কোল্ড ড্রিঙ্কস, প্যাকেজড ফুড থাকে ফ্রিজে। সেগুলো বাইরে রেখে দিন। যে খাবারগুলো আবার ফ্রিজে রাখতে হবে সেগুলো অন্যত্র রেখে ফ্রিজের তাক, সবজি রাখার ট্রে এবং ডিমের ট্রে সব বের করে নিন।

তৃতীয় ধাপ

তৃতীয় ধাপ

সবকটি তাক, ট্রে ভালো করে সাবান জলে ধুয়ে জল ঝরাতে দিন। তবে সেগুলো কখনই গরম জলে ধোবেন না। ফ্রিজের সব জিনিসই ঠান্ডা থাকে, হঠাৎ করে গরম জল ধুলে চিড় ধরে যেতে পারে। ফ্রিজের শক্ত দাগ দূর করতে টুথপেস্ট ব্যবহার করতে পারেন। ফ্রিজের গন্ধ দূর করতে একটি জারে বেকিং সোডা নিয়ে ফ্রিজে রেখে দিন। যতক্ষণ না গন্ধ যাচ্ছে রেখে দিতে হবে।

চতুর্থ ধাপ

চতুর্থ ধাপ

এরপর ফ্রিজের ভিতরের অংশ পরিষ্কার করতে হবে। প্রথমে হালকা গরম জলে সাবান মিশিয়ে নিন। তাতে কাপড় ভিজিয়ে ভিতরটা মুছুন। এরপর পরিষ্কার জল দিয়ে পরিষ্কার করে নিন। তারপর শুকনো কাপড় দিয়ে মুছে নিতে হবে। একই পদ্ধতিতে ফ্রিজের দরজা, বাইরের অংশও মুছে নিন।

সাবানের পরিবর্তে ঘরে তৈরি সলিউশনও ব্যবহার করতে পারেন -

১) এক বালতি জলে ১ টেবিল চামচ লিকুইড ব্লিচ মিশিয়ে সেই জল দিয়ে পরিষ্কার করতে পারেন।

২) একটি বালতিতে এক কাপ অ্যামোনিয়া, হাফ কাপ ভিনেগার, ১/৪ কাপ বেকিং সোড মিশিয়ে নিন। মিশ্রণটি স্প্রে বোতলে ভরে ফ্রিজ পরিষ্কার করতে পারেন।

যেভাবে ফ্রিজ পরিষ্কার করলেন একইভাবে ফ্রিজারও পরিষ্কার করে নিন। প্রথমে খালি করুন ফ্রিজার। বরফের পাত্র থেকে বরফের টুকরোগুলো ফেলে দিয়ে নতুন জল ভরে রাখুন। পরিষ্কার হয়ে যাওয়ার পর ফ্রিজারে যেসব খাবারের প্যাকেট ছিল সেগুলো নির্দিষ্ট জায়গায় রেখে দিন।

নিমেষেই সাফ হবে মাইক্রোওয়েভ ওভেন! জেনে নিন কিছু সহজ উপায়

পঞ্চম ধাপ

পঞ্চম ধাপ

পরিষ্কার করার পর একটা পাতিলেবু কেটে ফ্রিজের সব তাকে রেখে দিন। ফ্রিজের দরজা খোলা রাখুন কিছুক্ষণ। ভাল হয় সারারাত ফ্রিজের দরজা খুলে রাখলে। নাহলে ঘণ্টা দুয়েক ফ্রিজ খোলা রাখার পর আবার চালু করুন। প্রথমেই খাবার রাখবেন না। একটা জলের বোতল রাখুন। ঠান্ডা হতে শুরু করলে বাটার, চিজ, প্যাকেজড ফুড রাখতে পারেন। তারপর রাখুন শাকসবজি।

জিনিসপত্র ফ্রিজে রেখে দেওয়ার পর রান্নাঘরের যে জায়গায় ফ্রিজ থেকে বের করা জিনিসপত্র রেখেছিলেন, সেখানটাও পরিষ্কার করেন নিন। এরপর সাবান দিয়ে ভাল করে হাত ধুয়ে ফেলুন।

ফ্রিজ যতটা সম্ভব খালি রাখলে ভালো হয়। বেশি জিনিস ফ্রিজে ভরলে ঠান্ডা কম হবে। নিয়মিত ফ্রিজ পরিষ্কার করার চেষ্টা করুন, তাহলে নোংরা যেমন কম হবে, তেমনি খাটুনিও কমবে।

English summary

How to Clean a Refrigerator Both Inside and Out

To keep your fridge in good condition and ward off unpleasant odors, use these tips for the best way to clean a refrigerator inside and out.
X