For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

নিতম্বে ব্রণ নিয়ে মহা সমস্যায় পড়েছেন? এই ঘরোয়া প্রতিকারগুলি আপনাকে এর থেকে মুক্তি দিতে পারে

|

ব্রণ, ত্বকের এমন একটি সাধারণ সমস্যা যা, শুধুমাত্র আমাদের মুখের মধ্যেই সীমাবদ্ধ নয়, শরীরের আরও অনেক অংশে হয়ে থাকে। দেহের বিভিন্ন অংশে ব্রণ হওয়ার মধ্যে একটি হল বাট অ্যাকনি বা নিতম্বে ব্রণ। এতে আক্রান্ত ব্যক্তিরা প্রদাহ, ব্যথা, চুলকানি এবং জ্বালায় জর্জরিত হয়ে পড়ে। তাই, এটি চিকিৎসা না করে ছেড়ে দেওয়া উচিত নয়।

নিতম্বে ব্রণ মূলত, ত্বকের ছিদ্র বন্ধ হওয়া এবং চুলের ফলিকলগুলির প্রদাহজনিত কারণে হয়। আর, এই চিকিৎসার ক্ষেত্রে বিভিন্ন ধরনের ঘরোয়া পদ্ধতিই যথেষ্ট। আসুন তবে দেখে নেওয়া যাক, নিতম্বে ব্রণ সারাতে কী কী ঘরোয়া পদ্ধতি অবলম্বন করা প্রয়োজন, এখানে তার কয়েকটি দেওয়া হল -

নিতম্বে ব্রণ নিরাময়ের ঘরোয়া উপায়

১) লেবুর রস এবং গ্লিসারিন

১) লেবুর রস এবং গ্লিসারিন

অ্যাসিডযুক্ত লেবুতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বৈশিষ্ট্য রয়েছে এবং গ্লিসারিনে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বৈশিষ্ট্য আছে। এই উভয় উপাদানই ব্রণ কমাতে খুব কার্যকর।

উপাদান

ক) ১ চা চামচ লেবুর রস

খ) ১ চা চামচ গ্লিসারিন

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে দুটি উপাদানই ভাল করে মেশান।

খ) এরপর, তুলোয় এই মিশ্রণটি নিয়ে আক্রান্ত জায়গায় প্রয়োগ করুন।

গ) ১০-১৫ মিনিট রেখে দিন এবং পরে ভাল করে ধুয়ে ফেলুন।

২) নারিকেল তেল

২) নারিকেল তেল

নারকেল তেলের ইমোলিয়েন্ট, অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি ও অ্যান্টি-ব্যাকটিরিয়াল বৈশিষ্ট্যগুলি ত্বককে গভীরভাবে পরিষ্কার করতে এবং ত্বকে সংক্রমণের চিকিৎসা করতে, নিতম্বে ব্রণ থেকে মুক্তি দেওয়ার একটি শক্তিশালী প্রতিকার।

উপাদান

ক) প্রয়োজন মতো নারকেল তেল

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) আপনার তালুতে অল্প পরিমাণে নারকেল তেল নিন।

খ) আক্রান্ত জায়গায় নারকেল তেল লাগান এবং কয়েক মিনিট ধরে সেখানে ম্যাসাজ করুন।

গ) সারারাত রেখে দিন।

ঘ) সকালে হালকা গরম জল দিয়ে এটি ধুয়ে ফেলুন।

৩) বরফ

৩) বরফ

নিতম্বের উপরে বরফ ঘষলে, তা ব্রণ নিরাময়ে সহায়তা করে। এটি ত্বককে শান্ত করে এবং ব্রণজনিত প্রদাহ হ্রাস করে।

উপাদান

ক) ১-২ টি আইস কিউব

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) কয়েক মিনিট ধরে আক্রান্ত স্থানে আইস কিউবগুলি ঘষুন।

খ) কোনও কাপড় দিয়ে ঢেকে দেওয়ার আগে, জায়গাটি শুকিয়ে নিন।

৪) ওটমিল, দই এবং হলুদ

৪) ওটমিল, দই এবং হলুদ

ওটমিল ব্রণ দূর করতে ত্বককে এক্সফোলিয়েট করে। দইতে উপস্থিত ল্যাকটিক অ্যাসিড, হলুদের অ্যান্টিসেপটিক বৈশিষ্ট্যগুলির সঙ্গে মিলিত হয়ে ত্বকের ছিদ্রগুলি পরিষ্কার করে এবং নিতম্বের ব্রণ চিকিৎসা করে।

উপাদান

ক) ১ টেবিল চামচ গ্রাউন্ডেড ওটমিল

খ) ১ টেবিল চামচ দই

গ) ১ চা চামচ হলুদ

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে ওটমিল নিন।

খ) এতে দই এবং হলুদ যোগ করুন ও ভালভাবে মেশান।

গ) আক্রান্ত জায়গায় পেস্ট লাগান এবং কয়েক মিনিট ধরে ম্যাসাজ করুন।

ঘ) প্রায় পাঁচ মিনিট রেখে দিন।

ঙ) পরে এটি ধুয়ে ফেলুন এবং শুকনো করে নিন।

সোয়াইন ফ্লু প্রতিরোধ করতে রইল কয়েকটি ঘরোয়া প্রতিকার, দেখে নিন সেগুলি

৫) টি ট্রি অয়েল এবং অলিভ অয়েল

৫) টি ট্রি অয়েল এবং অলিভ অয়েল

টি ট্রি অয়েলের অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ফাঙ্গাল বৈশিষ্ট্যগুলি নিতম্বের ব্রণ চিকিৎসা করে। এটি প্রদাহ কমাতেও সহায়তা করে।

উপাদান

ক) ১ টেবিল চামচ অলিভ অয়েল

খ) ১ চা চামচ টি ট্রি অয়েল

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে অলিভ অয়েল নিন।

খ) তাতে টি ট্রি অয়েল দিয়ে ভাল করে মেশান।

গ) মিশ্রণটি আক্রান্ত জায়গায় লাগান।

ঘ) ১০ থেকে ১৫ মিনিট রেখে দিন এবং পরে হালকা গরম জলে ধুয়ে শুকনো করে নিন।

৬) দই ও হলুদ

৬) দই ও হলুদ

আম্লিক প্রকৃতির দইয়ের সাথে অ্যান্টি-সেপটিক বৈশিষ্ট্যযুক্ত হলুদ মিশ্রিত করে লাগালে নিতম্বের ব্রণ কমে।

উপাদান

ক) ১/২ টেবিল চামচ দই

খ) ১ চা চামচ হলুদ

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে দই এবং হলুদ নিয়ে ভালভাবে মেশান।

খ) এরপর, মিশ্রণটি আক্রান্ত জায়গায় লাগান এবং শুকনোর জন্য কিছুক্ষণ রাখুন।

গ) পরে হালকা গরম জলে এটি ধুয়ে ফেলুন।

৭) অ্যালোভেরা

৭) অ্যালোভেরা

নিতম্বের ব্রণর ক্ষেত্রে অ্যালোভেরাও বেশ কার্যকরী।

উপাদান

প্রয়োজন মতো ফ্রেশ অ্যালোভেরা জেল

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) আক্রান্ত জায়গায় অ্যালোভেরা জেলটি লাগান।

খ) ২০ থেকে ২৫ মিনিট রেখে দিন।

গ) পরে হালকা গরম জলে এটি ধুয়ে ফেলুন এবং শুকিয়ে নিন।

৮) বেকিং সোডা

৮) বেকিং সোডা

অ্যান্টি-ব্যাকটিরিয়াল বৈশিষ্ট্য যুক্ত বেকিং সোডা নিতম্বে ব্রণ চিকিৎসার জন্য সেরা ঘরোয়া প্রতিকারগুলির একটি।

উপাদান

ক) ১/২ চা চামচ বেকিং সোডা

খ) ২-৩ চা চামচ জল

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) বেকিং সোডায় জল দিন এবং ভালভাবে মেশান।

খ) আক্রান্ত জায়গায় মিশ্রণটি লাগান।

গ) প্রায় পাঁচ মিনিট রেখে দিন।

ঘ) এরপর, হালকা গরম জলে ধুয়ে ফেলুন।

পিরিয়ডের সময় কোমরে প্রচন্ড ব্যাথা, ঘরোয়া সমাধান এবার হাতের কাছে

৯) চালের গুঁড়ো, দই এবং মধু

৯) চালের গুঁড়ো, দই এবং মধু

চালের গুঁড়ো ব্রণ নিরাময়ে ত্বককে এক্সফোলিয়েট করে। আর, মধু ত্বকের ক্ষতি থেকে রক্ষা করে এবং ত্বককে ময়েশ্চরাইজ রাখে।

উপাদান

ক) ১ টেবিল চামচ চালের গুঁড়ো

খ) ১ চা চামচ দই

গ) ১ চা চামচ মধু

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে চালের গুঁড়ো নিন।

খ) তাতে দই এবং মধু দিয়ে ভালভাবে মেশান।

গ) প্রায় পাঁচ মিনিট ধরে এই মিশ্রণটি আক্রান্ত জায়গায় লাগান।

ঘ) পরে হালকা গরম জলে এটি ধুয়ে ফেলুন।

১০) অ্যাসপিরিন এবং দই

১০) অ্যাসপিরিন এবং দই

অ্যাসপিরিন এবং দই নিতম্বের ব্রণ কমানোর জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ ঘরোয়া প্রতিকার।

উপাদান

ক) ৪ - ৫ টি অ্যাসপিরিন

খ) ১ চা চামচ দই

ব্যবহারের পদ্ধতি

ক) একটি পাত্রে অ্যাসপিরিন ভাল করে গুঁড়ো করে নিন।

খ) এতে দই দিয়ে ভালভাবে মেশান।

গ) আক্রান্ত স্থানে মিশ্রণটি প্রয়োগ করুন।

ঘ) না শুকানো পর্যন্ত রেখে দিন।

ঙ) পরে হালকা গরম জল ব্যবহার করে এটি ধুয়ে ফেলুন।

English summary

Home Remedies To Get Rid Of Butt Acne

Butt acne is caused mainly due to clogging of skin pores and inflammation of hair follicles. Fortunately, home remedies are one of the best ways to treat butt acne.
X