ব্রয়েলার মুরগি কি অস্বাস্থ্যকর?

Subscribe to Boldsky

মুরগি প্রিয় বাঙালিদের কছে ক্ষমা চেয়েই বলছি একাধিক গবেষণায় একথা প্রমাণিত হয়েছে যে ব্রয়েলার মুরগি শরীরের পক্ষে একেবারেই ভালো নয়। তাই আজ থেকেই ব্রয়েলার মুরগির পরিবর্তে দেশি মুরগি খাওয়া শুরু করুন। তাতে হয়তো খরচ বাড়বে, কিন্তু শরীরটা তো বাঁচবে।

আসলে যেভাবে ব্রয়েলার মুরগিদের বড় করা হয়, তা একেবারেই সটিক পদ্ধতি নয়। সর্বোপরি, বৈজ্ঞানিক পদ্ধতির তোয়াক্কা না করেই তাদের ব্রিড করানো হয়, যার সরাসরি প্রভাব পড়ে আমাদের শরীরের উপর। মুরগি মোটাসোটা হবে তো তা থেকে বেশি মাংস পাওয়া যাবে, ফলে লাভ হবে বেশি। এই লোভে যেভাবে মুরগিদের মোটা করা হয় তা একেবারেই স্বাস্থ্যকর নয়। তাই সাবধান!

তথ্য ১:

তথ্য ১:

প্রথমত কাঁচা মাংসে প্রচুর মাত্রায় ব্য়াকটেরিয়া থাকে। আর দোকানে যেভাবে একাধিক মুরগিকে এক সঙ্গে রাখা হয় তাতে দু-পাঁচটার শরীরে সেই ক্ষতিকর ব্য়াকটেরিয়াগুলি প্রবেশ করে না যাওয়াটা কোনও অস্বাভাবিক নয়। আর এমনটা যে হয় না, সে কথা কেউ নিশ্চিত করে বলতে পারে কি? শুধু তাই নয়, যখন মুরগী কাটা হয় তখনও জীবিত মুরগির শরীর থেকে কাঁচা মাংসে ব্য়াকটেরিয়া চলে যাওয়ার আশঙ্কা থেকে যায়। আর এই জীবাণু যদি আমাদের শরীরে প্রবেশ করে তাহলে আর রক্ষা নেই। এক্ষেত্রে দেশি মুরগি কিন্তু অনেক বেশি নিরাপদ।

 তথ্য ২:

তথ্য ২:

পোলট্রিতে বড় করার সময় ব্রয়েলার মুরগিদের অ্যান্টি বায়োটিক ইনজেকশন দেওয়া হয়। ফলে এমন ধরনের মুরগি বেশি খেলে আমাদের শরীরেও অ্যান্টি-বায়োটিক রেজিসটেন্স তৈরি হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। প্রসঙ্গত, গত কয়েক বছরে আমাদের দেশে অ্যান্টিবায়োটিক রেজিসটেন্সের হার বাড়ার পিছনে ব্রয়েলার মুরগির আবদান যে কোনও অংশে কম নেই, তা হলফ করে বলা যায়।

 তথ্য ৩:

তথ্য ৩:

কয়েকজন বিশেষজ্ঞের মতো মাত্রাতিরিক্ত ব্রয়েলার মুরগি খেলে রক্তে বাজে কোলেস্টেরলের মাত্রা বৃদ্ধা পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ক্য়ান্সারে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কাও বৃদ্ধি পায়। তবে এই য়ুক্তির সপক্ষে এখন পর্যন্ত কোনও প্রমাণ পাওয়া যায়নি।

 তথ্য ৪:

তথ্য ৪:

আগেই বলেছি ব্রয়েলার মুগিদের যেভাবে বড় করা হয় বা তাদের মেটা করার জন্য় যে পদ্ধিত অনুসরণ করা হয় তা মোটেই বিজ্ঞানসম্মত নয়। এক্ষেত্রে এমন কিছু কেমিকেল মুরগির শরীরে ঢোকান হয়, যা আমাদের শরীরে প্রবেশ করলে নানা রকমের জটিল রোগ হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়। তাই এবার থেকে ব্রয়েলার মুরগি কেনার আগে একবার ভাববেন দয়া করে।

তথ্য ৫:

তথ্য ৫:

ব্রয়েলার চিকেন খেলে ফুড পয়েজেনিং হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। একাধিক গবেষণয়া দেখা গেছে প্রায় ৬৭ শতাংশ ব্রয়েলার মুরগির শরীরে ই-কোলাই ব্য়াকটেরিয়া থাকে, যা কোনও ভাবেই কিন্তু আমাদের শরীরের পক্ষে ভালো নয়।

তথ্য ৬:

তথ্য ৬:

দেশি মুরগি কি ক্ষতিকারক নয়? একেবারেই না। কারণ কি জানেন? দেশি মুরগি একেবারে প্রকৃতির নিয়ম মেনে বড় হয়। ফলে ব্রয়েলার মুরগির মতো তাদের শরীরে কোনও কেমিকেলের উপস্থিতি যেমন পরিলক্ষিত হয় না, তেমনি দেশি মুরগি অনেকাংশেই ব্য়াকটেরিয়া মুক্ত হয়। ফলে তা থেকে আমাদের শরীর খারাপ হওয়ার আশঙ্কা থাকে না।

 তথ্য ৭:

তথ্য ৭:

বাজার থেকে ব্রয়েলার মুরগির মাংস কিনে কখনই বাকি খাবার বা সবজির সঙ্গে সেটি রাখবেন না। শুধু তাই নয়, যে ছুরি দিয়ে মাংসটা কাটবেন তা দিয়ে ওই সময় সবজি কাটবেন না। আর যে প্লেটে কাঁচা মাংসটা রাখবেন তা ভালো করে ধুয়ে নিয়ে তবেই অন্য় কাজে লাগাবেন। যেমনটা আগেও বলেছি কাঁচা মাংসে অনেক সময়ই ব্য়াকটেরিয়া থাকে। এই নিয়মটা মানলে সেই জীবাণু বাকি খাবারে ছড়িয়ে যাওরা সুযোগ পায় না। ফলে শরীর খারাপ হওয়ার আশঙ্কা কিছুটা হলেও কমে।

For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS
For Daily Alerts

    English summary

    ব্রয়েলার মুরগি খেলেই খতম!

    All chicken lovers hate to hear it but broiler chicken isn't so good for your health. If you really love eating chicken then eating country-chicken or chicken which is grown at home is better than broiler chicken.
    We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more