For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

ডায়াবেটিস রোগীরা এই লক্ষণগুলি থেকে সাবধান! হতে পারে করোনার সঙ্কেত

|

কোভিডের সেকেন্ড ওয়েভ এবং গত বছরের মহামারীর মধ্যে বেশ কিছু পার্থক্য দেখা যাচ্ছে। এবছর কোভিডের নতুন রূপগুলির প্রকাশ হওয়ার পরে ভাইরাস আগের চেয়ে আরও বেশি সংক্রামক ও ভয়ানক হয়ে উঠেছে। প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ মানুষ করোনার শিকার হচ্ছে। মৃত্যু মিছিল থামার কোনও নামই নেই। করোনার নতুন ভেরিয়েন্ট-এর লক্ষণগুলিতেও পরিবর্তন এসেছে, যা রোগীদের ক্ষেত্রে খুবই বিপজ্জনক। এর মধ্যে ডায়াবেটিস রোগীরা সবচেয়ে বেশি ঝুঁকিতে রয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। সম্প্রতি, কোভিড সংক্রামিত ডায়াবেটিস রোগীদের মৃত্যুর হার বেড়েছে।

কোভিড আক্রান্ত ডায়াবেটিস রোগীদের মধ্যে কিছু নতুন উপসর্গ দেখা দিচ্ছে, যা আমাদের গুরুত্ব সহকারে নেওয়া উচিত। এই আর্টিকেলে এমন চারটি উপসর্গের কথা বলা হয়েছে, যেগুলি এড়িয়ে যাওয়া উচিত নয়।

১) ত্বকের সমস্যা

১) ত্বকের সমস্যা

করোনার ভাইরাসের সেকেন্ড ওয়েভে, কোভিড রোগীদের মধ্যে বেশ কিছু অস্বাভাবিক লক্ষণ দেখা যাচ্ছে, যেমন - ত্বকে ব়্যাশ বা ফুসকুড়ি, লালচে ভাব, ফোলাভাব এবং অ্যালার্জি। এছাড়াও, পায়ের আঙুলে ফুসকুড়ি, চুলকানি, ত্বকে লাল দাগ, ইত্যাদি ডায়াবেটিস রোগীদের মধ্যে দেখা যাচ্ছে।

ডায়াবেটিস রোগীদের রক্তে সুগার লেভেল বেশি হলে, ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়। যার কারণে শরীরে প্রদাহ, ফোলাভাব, লালচে ভাব, চুলকানি, ফুসকুড়ি, ফোস্কা, ইত্যাদি হওয়ার সম্ভাবনা বাড়ে। এখন এগুলিও কোভিড সংক্রমণের অন্যতম লক্ষণ। তাই ডায়াবেটিস রোগীদের ত্বকের প্রতি নজর দেওয়া উচিত, যাতে তারা করোনা ভাইরাসের প্রাথমিক লক্ষণগুলি সনাক্ত করে দ্রুত ট্রিটমেন্ট শুরু করতে পারে।

২) নিউমোনিয়া

২) নিউমোনিয়া

কোভিড আক্রান্তদের জন্য, বিশেষত যারা ডায়াবেটিসে আক্রান্ত তাদের ক্ষেত্রে নিউমোনিয়া মারাত্মক হতে পারে। দেহে প্রদাহ বৃদ্ধি এবং অনিয়ন্ত্রিত ব্লাড সুগার লেভেলের ফলে রেসপিরেটরি হেল্থের উপর ভীষণ প্রভাব পড়ে। ফলস্বরূপ, বিরাট শারীরিক ক্ষতি হতে পারে।

স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে, রক্তে সুগারের মাত্রা বেশি হওয়ায় ভাইরাস সহজেই শরীরে ছড়িয়ে পড়ে বিভিন্ন ক্ষতি করতে পারে। টাইপ-১ এবং টাইপ-২, উভয় ডায়াবেটিস রোগীর ক্ষেত্রেই এটি খুবই ঝুঁকির। এমন পরিস্থিতিতে, ফুসফুসের বেশি ক্ষতি হতে পারে।

৩) অক্সিজেনের স্যাচুরেশন লেভেল নেমে যাওয়া

৩) অক্সিজেনের স্যাচুরেশন লেভেল নেমে যাওয়া

কোভিড রোগীদের ক্ষেত্রে অক্সিজেন লেভেল নেমে যাওয়া সবচেয়ে বড় সমস্যা। ডায়াবেটিস রোগীদের ক্ষেত্রে এটি অনেক বেশি ঝুঁকিপূর্ণ। গবেষণা অনুসারে, ডায়াবেটিস রোগী বা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যাদের কম সেই রোগীদের মধ্যে অক্সিজেনের অভাব এবং শ্বাসকষ্ট, বুকের ব্যথা এবং হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।

হাইপক্সিয়া এমন একটি অবস্থা, যেখানে কোনও লক্ষণ ছাড়াই অক্সিজেনের মাত্রা হঠাৎ নেমে যায়। এই অবস্থাটি সাধারণত ডায়াবেটিসে আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি দেখা যায়। তাই তাদের সবসময় স্বাস্থ্যের দিকে মনোযোগ দেওয়া প্রয়োজন।

৪) ব্ল্যাক ফাঙ্গাস

৪) ব্ল্যাক ফাঙ্গাস

বর্তমানে করোনায় আক্রান্ত রোগীদের মধ্যে ব্ল্যাক ফাঙ্গাস দ্রুত ছড়াচ্ছে। এটি বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ডায়াবেটিস রোগী, স্টেরয়েড-এর কারণে দুর্বল রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বা অন্য কোনও রোগে আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে দেখা যাচ্ছে। এই রোগের অন্যতম লক্ষণগুলি হল, চোখে লালচে ভাব, মাথা ব্যথা, জ্বর, শ্বাসকষ্ট, ইত্যাদি।

English summary

Coronavirus symptoms : Four COVID-19 symptoms diabetic patients should be careful of

Coronavirus symptoms : Four COVID-19 symptoms diabetic patients should be careful of. Read on.
X