For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

Bappi Lahiri : সোনার গয়নার প্রতি কেন তাঁর এত টান? জানিয়েছিলেন নিজেই

|

বলিউডের প্রখ্যাত গায়ক-সুরকার বাপ্পি লাহিড়ির শেষকৃত্য সম্পন্ন হল আজ। আশি ও নব্বইয়ের দশকে নিজের ডিস্কো গান দিয়ে সকলের মন জয় করেছিলেন তিনি। ভারতীয় সঙ্গীত জগতে 'ডিস্কো কিং'-এর অবদান ভোলার মতো নয়। আজও তাঁর ডিস্কো গানের তালে নেচে ওঠেন আট থেকে আশি। তবে গানের পাশাপাশি বাপ্পি লাহিড়ি জনপ্রিয় ছিলেন তাঁর ফ্যাশনের জন্যও। সোনার প্রতি তাঁর ঝোঁক কারও অজানা নয়। সোনার সঙ্গে তাঁর ছিল হৃদয়ের সম্পর্ক, সোনাই ছিল তাঁর প্রাণ। সোনাকে ঈশ্বর বলে মানতেন। সোনা ছিল তাঁর কাছে সৌভাগ্যের প্রতীক। বাপ্পিদা মনে করতেন, সোনা তাঁর জন্য খুব পয়া।

কিন্তু তাঁর এই বিপুল ঐশ্বর্য এখন সামলাবে কে? তাঁর সাধের গয়নাগুলোর কী হবে? অনেকের মনেই এই প্রশ্ন ঘোরাফেরা করছে। প্রতিবেদন অনুসারে, শিল্পীর দুই সন্তান বাপ্পা ও রেমা বাবার সমস্ত গয়নার দায়িত্বভার গ্রহণ করেছেন। দুই ভাইবোন ঠিক করেছেন, বাবার বাকি জিনিসের মতোই গয়নাগুলোও তাঁরা সংরক্ষণ করবেন। এই সব সোনার অলংকার তাঁরা গচ্ছিত রেখে দেবেন প্রয়াত বাবার স্মৃতিতে।

১) বরাবরই খুব শৌখিন মানুষ ছিলেন বলিউডের 'ডিস্কো কিং'। ওজনদার ছোটোখাটো চেহারায় গা ভর্তি সোনার গয়না ঝলমল করত। গলায় লকেট-সহ সোনার একাধিক ভারী চেন, হাতের প্রায় সব আঙুলেই পরতেন সোনা-রুপোর আংটি। তাতে বহুমূল্য পাথর বসানো থাকত। আর কব্জিতে সোনার ব্লেসলেট। চুলের স্টাইলও বেশ চোখে পড়া মতো। এগুলোর পাশাপাশি চোখে সর্বদা বেশ ওজনদার রোদচশমা থাকতই। এককথায় বলতে গেলে, মাথা থেকে পা পর্যন্তই সোনায় মোড়া থাকত সবসময়। তাই বলিউডের 'গোল্ড ম্যান' হিসেবেও পরিচিত ছিলেন তিনি।

২) ২০১৪ সালে রাজনীতিতেও পা রেখেছিলেন। শ্রীরামপুর লোকসভা কেন্দ্র থেকে বিজেপির হয়ে লড়েছিলেন। তবে ওই কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে হেরে যান তিনি। সেইবার লোকসভা নির্বাচনের প্রার্থী হিসেবে সম্পত্তির হলফনামা দায়ের করার সময় নিজের সোনার গয়নার হিসাবও দিতে হয়েছিল বাপ্পিদা-কে। ২০১৪ সালের হলফনামায় তিনি জানিয়েছিলেন, তাঁর কাছে ৭৫৪ গ্রামের সোনার গয়না, ৪.৬২ কিলোগ্রামের রুপোর গয়না রয়েছে। এছাড়াও, চার লাখের হিরের গয়না রয়েছে বলে জানান তিনি। তবে এই আট বছরে হয়তো সোনা-রুপো-হীরের পরিমাণ আরও বেড়েছে।

৩) সোনার গয়নার প্রতি তাঁর এত টান কেন? বহুবার তাঁকে এই প্রশ্নের সম্মুখীন হয়েছে। একবার এক গানের রিয়েলিটি শোয়ে তিনি বলেছিলেন, '১৯৭৫ সালে 'জখমি' ছবিতে আমার গান সুপারহিট হয়। তখন মা একটা সোনার হার উপহার দিয়েছিলেন। তারপর থেকেই সোনা আমার কাছে সৌভাগ্যের প্রতীক হয়ে গিয়েছে। এর পর আমার প্রায় সব গানই হিট।'

আরও পড়ুন : Bappi Lahiri : কেন অলকেশ থেকে বাপ্পি হয়েছিলেন? জেনে নিন তাঁর জীবনের অজানা কিছু কথা

৪) তবে তাঁর গা ভর্তি সোনার গয়নার পিছনে আমেরিকান সিঙ্গার এলভিস প্রেসলি-রও অবদান কম ছিল না। এক সাক্ষাৎকারে জানিয়েছিলেন, এলভিস প্রেসলির থেকেই তিনি উৎসাহ পেয়েছেন এই ব্যাপারে। 'কিং অব রক অ্যান্ড রোল'-কে দেখে অনুপ্রাণিত হয়েছিলেন তিনি। বাপ্পিদা জানিয়েছিলেন, 'আমি ছিলাম এলভিস প্রেসলির বড় ভক্ত। প্রেসলি গলায় সোনার হার পরতেন। আমি ভাবতাম যদি আমি কখনও সাফল্য পাই, তাহলে একেবারে আলাদাভাবে আমি নিজের ইমেজ তৈরি করব। ভগবানের আশীর্বাদে আমি সোনা দিয়ে তা করতে পেরেছি। অনেকেই ভাবেন আমি দেখনদারির জন্য সোনার গয়না পরি। কিন্তু তা সত্যি নয়। সোনার আমার জন্য খুব লাকি।'

৫) কেবল সোনার গয়নাই নয়, সোনার কাপ-প্লেটও কিনেছিলেন বাপ্পিদা। গত বছর ধনতেরসে তিনি গয়নার পরিবর্তে একটি সোনার কাপ-প্লেটের সেট কেনেন।

৬) একদম প্রথম দিকে ভরপুর সোনার গয়নাতেই দেখা যেত বাপ্পিদাকে। তবে পরবর্তী সময় তিনি তাঁর গয়নার জন্য 'Luminex Uno' নামক নতুন ধাতু ব্যবহার করতেন। তিনি বলেছিলেন, 'সোনা, প্ল্যাটিনাম আর রুপো দিয়ে তৈরি এই নতুন ধাতু Luminex Uno চমৎকার।'

English summary

Why Bappi Lahiri was obsessed with gold?

Do You Know Why Bappi Lahiri Was So Fond Of Gold? It's Because Of Hollywood Icon Elvis Presley!
X
Desktop Bottom Promotion