For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

সম্পর্কে সমস্যা দেখা দিচ্ছে? জানুন সম্পর্ক শেষ করার কিছু উপায়

|

সম্পর্ক শেষ করা কখনই সহজ নয়। কারণ, আমরা সকলেই জানি কোনও সম্পর্ক ভাঙার মতো কষ্টের আর কিছু হয় না, সম্পর্ক ভাঙা মানে অপরজনকে কষ্ট দেওয়া। আপনি যদি কোনও সম্পর্ক ভাঙতে চান তাহলে, সম্পর্ক শেষ করার সময়, আপনি বিভিন্ন কারণ দেখাতে পারেন, যেগুলি আপনাকে বিচ্ছেদের সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য করেছিল। এই পরিস্থিতিতে, আপনার সঙ্গী আঘাত পেতে পারে বা ব্রেক আপ এর কথা শুনে স্তম্ভিত হতে পারে।

অতএব, আপনি যদি আপনার সঙ্গীর সাথে সম্পর্ক শেষ করার চিন্তাভাবনা করে থাকেন তবে আপনার যথেষ্ট সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত। কারণ, অনেক সময় সম্পর্ক ভাঙার পর আপনার মনে হতাশা তৈরি হতে পারে বা আপনি খুব কষ্ট পেতে পারেন। আজ, আমরা এখানে কয়েকটি টিপস দিয়েছি, যা আপনাকে আপনার সঙ্গীর সাথে সম্পর্ক শেষ করার ক্ষেত্রে সহায়তা করতে পারে।

 

১) সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে ভাল করে ভাবুন

সঙ্গীর সাথে সম্পর্ক শেষ করার আগে, উভয়ের মধ্যে স্পষ্টতা থাকা ভাল। আপনি সত্যিই আপনাদের সম্পর্কটি শেষ করতে চান কি না তা ভাবা প্রয়োজন। যদি সত্যিই চান, তবে এর পিছনে কারণ কী।

সম্পর্ক ভাঙার ক্ষেত্রে কিছু অপ্রাসঙ্গিক কারণ হওয়া উচিত নয়, যেমন-আপনার সঙ্গী অলস, আপনাকে খুব বেশিবার ফোন করে না। এছাড়া, যদি আপনি অন্য কারও প্রতি আকৃষ্ট হন এবং যদি মনে করেন যে, আপনার সঙ্গীর চেয়ে অন্য কোনও ছেলে বা মেয়ে আরও ভাল, তাই আপনার সম্পর্কটি শেষ করা উচিত, তবে এই কারণগুলি বাদ দিন।

ডিসেম্বরকে কেন বছরের সেরা মাস বলা হয়? জেনে নিন এর আসল কারণ

যদি আপনার সঙ্গী সত্যিই আপনার প্রতি যত্নবান এবং আপনাকে সুরক্ষা ও সুখ দিতে কিছু করেন তবে সম্পর্কটি শেষ করা একেবারেই অর্থহীন।

 

২) উপযুক্ত সময় বাছুন

ব্রেক আপ করার ক্ষেত্রে আপনাকে সঠিক সময়ের জন্য অপেক্ষা করা উচিত। উদাহরণস্বরূপ, যদি আপনার সঙ্গী অসুস্থ থাকে বা কোনও পরীক্ষা থাকে এবং সে কোনও কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে, সেক্ষেত্রে তার বিষয়গুলি না মেটা পর্যন্ত আপনি অপেক্ষা করুন। অন্যথায়, পরিণতি অপ্রত্যাশিত এবং আরও খারাপ হতে পারে।

৩) ফোন বা মেসেজের মাধ্যমে ব্রেক আপ করা এড়িয়ে চলুন

অনেক সম্পর্কের ক্ষেত্রেই তারা ফোন বন্ধ করা বা মেসেজের রিপ্লাই না দেওয়ার মাধ্যমে সম্পর্কের ইতি টানেন কারণ তারা উভয়ের মুখোমুখি না হওয়ার বিকল্প খোঁজার চেষ্টা করেন। কিন্তু, এইভাবে সম্পর্ক ভেঙে ফেলার পরিবর্তে ব্যক্তিগতভাবে সম্পর্কের ইতি টানাই ভাল। আপনি আপনার সঙ্গীকে সাক্ষাত করতে বলতে পারেন, যাতে আপনাদের বিচ্ছেদে কোনও সমস্যা না হয়।

৪) ব্যক্তিগত এবং শান্ত জায়গা বাছুন

সঙ্গীর সাথে ব্রেক আপ করার সিদ্ধান্ত নেওয়ার পরে, আপনি অবশ্যই এই বিষয়ে আলোচনার জন্য কোনও ব্যক্তিগত জায়গা বেছে নিতে পারেন। এতে, আপনারা শান্তভাবে আপনাদের সমস্যাগুলি একে অপরকে বোঝাতে পারবেন এবং আপনাদের কেউ বিব্রত করবে না, কেউ আপনাদের দেখবে না।

অ্যারেঞ্জ ম্যারেজ নাকি লাভ ম্যারেজ? আপনি কোনটাকে সমর্থন করেন

৫) আন্তরিকভাবে আপনার চিন্তাভাবনা এবং অনুভূতি প্রকাশ করুন

ব্রেক আপের সময় আপনি যখন আপনার সঙ্গীর সাথে এ ব্যাপারে আলোচনা করবেন তখন আপনার অনুভূতি এবং চিন্তাভাবনা সম্পর্কে সৎ হওয়া দরকার। আপনাদের সম্পর্কটি শেষ হয়ে যাচ্ছে তা জেনে আপনার সঙ্গী ইমোশনাল হয়ে উঠতে পারে, কিন্তু নিজের আবেগকে চেপে না রাখাই ভাল। আপনি যদি সম্পর্কের মধ্যে থাকতে না চান, তবে, সম্পর্কের মধ্যে থাকতে আগ্রহী হওয়ার ভান করবেন না।

৬) অভদ্র এবং অস্পষ্ট হওয়া থেকে বিরত থাকুন

সঙ্গীর সাথে সম্পর্ক ছিন্ন করার অর্থ এই নয় যে আপনি আপনার সঙ্গীর সাথে অভদ্র এবং অস্পষ্ট আচরণ করবেন। সম্পর্ক থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য আপনি অবশ্যই খুশি হতে পারেন তবে সেই সময় হাসাহাসি করা অবশ্যই কোনও ভদ্রতা নয়। উপযুক্ত আবেগ প্রতিফলিত করা এবং অমায়িক থাকার চেষ্টা করুন।

৭) আপনার সঙ্গী যা বলতে চায় তা শুনুন

আপনি যখন আপনার মতামত এবং সিদ্ধান্ত প্রকাশ করেছেন, তখন আপনার সঙ্গীকেও তার মতামত প্রকাশ করতে দিন। সে আপনাকে কী বলতে চায় তা শুনুন, আপনার সঙ্গীকে বাধা দেবেন না। কিন্তু, আপনি যদি মনে করেন যে, সে কোনও ভুল এবং অনৈতিক কিছু বলছে তবে আপনি তাকে এটি বলা বন্ধ করতে বলতে পারেন।

ফসল বাঁচাতে চাষের জমিতে নামল 'বাঘরুপী কুকুর'! জেনে নিন আসল ঘটনা

৮) শান্ত থাকুন এবং ধৈর্য্য ধরুন

আপনার সঙ্গীর আবেগ এবং কথায় আচ্ছন্ন হওয়ার পরিবর্তে শান্ত এবং ধৈর্য্য ধরে থাকার চেষ্টা করুন। এটি বিষয়গুলিকে দ্রুত সমাধান করতে পারে। আপনাকে বুঝতে হবে যে, ব্রেক আপ আপনার বা আপনার সঙ্গীর পক্ষে সহজ নয়। আপনার সঙ্গী সম্পর্ক টিকিয়ে রাখতে যথাসাধ্য চেষ্টা করতে পারে। এমন পরিস্থিতিতে রাগান্বিত বা আক্রমণাত্মক হওয়ার চেষ্টা করবেন না কারণ এটি পরিস্থিতি আরও খারাপ করতে পারে।

৯) আপনার নিজের সিদ্ধান্তে দায়বদ্ধ থাকুন

আপনার নিজের সিদ্ধান্তকে স্বীকার করে দায়িত্ব গ্রহণ করা দরকার। অন্য কাউকে দোষারোপ করার পরিবর্তে আপনাকে বুঝতে হবে যে এটি আপনার সিদ্ধান্ত ছিল। এমন কিছু পরিস্থিতি থাকতে পারে, যা আপনাদের সম্পর্কের মধ্যে বিচ্ছেদ ঘটিয়েছে, তবে ব্রেকআপের পরে নিজের দায়িত্ব নিজেকে নিতে প্রস্তুত থাকতে হবে।

১০) বিভ্রান্তি এড়াতে এটি স্পষ্ট করুন

আপনি যখন আপনার সঙ্গীর সাথে সম্পর্ক শেষ করছেন, তবে নিশ্চিত হন যে আপনি এ সম্পর্কে স্পষ্ট। এর জন্য আপনার এখন থেকে আপনার সঙ্গীর সাথে যোগাযোগ করা এড়ানো উচিত।

Read more about: partner relationship break up
English summary

Tips To Break Up With Your Partner

we have listed down a few tips that can help you to end your relationship with your partner.
We use cookies to ensure that we give you the best experience on our website. This includes cookies from third party social media websites and ad networks. Such third party cookies may track your use on Boldsky sites for better rendering. Our partners use cookies to ensure we show you advertising that is relevant to you. If you continue without changing your settings, we'll assume that you are happy to receive all cookies on Boldsky website. However, you can change your cookie settings at any time. Learn more