For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

অষ্টমীর সাজে রকমারি তাঁত!

By Swaity Das
|

আলোর বেণুতে ভুবন মাতিয়ে ঢাকে কাঠির গুড়গুড় শুরু হতে না হতেই হুড়মুড়িয়ে এসে গেল মহাষ্টমী। পুজোর বাকি দিনগুলোতে কি পরা যায়, সেটা নিয়ে নানা মত। কিন্তু অষ্টমীর সকাল মানেই তাঁতের শাড়ী। বাংলার একান্ত নিজস্ব তাঁতের শাড়ী। যারা একটু মডার্ন সাজে অভ্যস্ত, এমনকি তাঁদের কাছেও অষ্টমীর সকালও তাঁতের শাড়ীর সঙ্গে সমার্থক। সকাল সকাল স্নান সেরে পছন্দমতো শাড়ী পরে 'সর্বমঙ্গলামঙ্গল্যে শিবে সর্বার্থসাধিকে' মন্ত্রে মায়ের পায়ে পুষ্পাঞ্জলি, প্যান্ডেলে গোল করে চেয়ার সাজিয়ে বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা আর খুনসুটি, নতুন প্রেমের চোখে বা ডি এস এল আরে নিজের প্রতিবিম্ব। অষ্টমীর সকালে এর কোনটাই কি ভাবা যায় তাঁতের শাড়ী ছাড়া? তাঁতে ফুটে ওঠে অনন্যতা, স্নিগ্ধতায় যোগ দেয় আভিজাত্য আর সাবেকিয়ানা। রকমারি ডিজাইন, রঙের বাহারে, তন্তুর উৎকর্ষে তাঁতের শাড়ী আছে ছোট থেকে বড়, সবার পছন্দ মতো। বেঁছে নিতে পারেন আপনার পছন্দসই তাঁতের শাড়িটি নিচের তালিকা থেকে।

১. জামদানি এবং টাঙ্গাইল শাড়ী:

১. জামদানি এবং টাঙ্গাইল শাড়ী:

বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকার নাম জড়িয়ে আছে ঢাকাই জামদানিতে। আভিজাত্যে অনন্য এই শাড়ী ছিল জমিদারঘরণীদের প্রিয় পরিধেয়। আর টাঙ্গাইলের তাঁতেরও জুড়ি মেলা ভার। দু'রকমের শাড়ীই আপনাকে সাজিয়ে তুলতে পারে দেবীর মতো করে।

২. মোটিফ প্রিন্ট:

২. মোটিফ প্রিন্ট:

তাঁতের শাড়ীর মূল বৈশিষ্ট হল এর পাড়। সেই সাবেক কাল থেকে ভিন্ন স্বাদের কারুকাজে অনন্য তাঁতের পাড়। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে এসেছে নানা পরিবর্তন ও পরিমার্জন। বাহারি ভিড়ে তাদের কিছু নাম চাঁদমালা (গোলাকার সোনালী বর্নের নক্সা), অর্ধচন্দ্র, আঁশ (মাছের আঁশের নক্সা), নীলাম্বরী, রাজমহল (রুইতনের নক্সা), তাঁরা, বেঁকি ইত্যাদি। পছন্দ মতো বেঁছে নিলেই হোল আপনার শাড়ী।

৩. ফুলছাপ:

৩. ফুলছাপ:

ফুলছাপ তাঁতের শাড়ী বেশীর ভাগই মোটিফ প্যাটার্নের হয়। তবে অনেক সময় অন্য ধরনের ফুলের ছাপের নানা ডিজাইনের শাড়ীও পাওয়া যায়।

৪. কল্কা পাড়:

৪. কল্কা পাড়:

কল্কা ছাপের ব্যবহার আজ বাংলার সর্বত্র। কলমকারিতেও কল্কার ব্যবহার হয়। এছাড়াও বহু রকমের শাড়িতেই কল্কা পাড়ের ব্যবহার চোখে পড়ে। মূলত কল্কা কথাটি বাংলা ভাষাতেই বেশি পরিচিত। কল্কা পাড়ের তাঁতের শাড়ি দুর্গা পুজোর ফ্যাশনে একেবারে হিট। তাই অষ্টমীর সকাল হোক, কী সন্ধ্যা, নিজেকে সাজাতেই পারেন কল্কা পাড়ের তাঁতের শাড়িতে।

৫. এমব্রোয়েডার্ড তাঁত:

৫. এমব্রোয়েডার্ড তাঁত:

নানা পাড় এবং ডিজাইনের তাঁতের শাড়ির দেখা মিললেও এমব্রোয়েডারি করা তাঁতের শাড়ি খুব একটা প্রচলিত নয়। যদিও নতুনত্বের ছোঁয়ায় তাঁতের শাড়ি যে আরও সমৃদ্ধি লাভ করেছে, তা তো বলাই যায়। তাই সোনালি জরির সুতোর কাজ করা বা কাঁথা কাজের সেলাইয়ে তৈরি তাঁতের শাড়ি আজকের সন্ধ্যায় পরতেই পারেন।

৬. ফেব্রিক প্রিন্ট:

৬. ফেব্রিক প্রিন্ট:

তাঁতের শাড়িতে মনের মতো রঙের ডিজাইন। জমকালো কাজ হোক বা হালকা ডিজাইনের কাজ, তাঁতের শাড়িতে নতুন ট্রেন্ড এই ফেব্রিক প্রিন্ট। অষ্টমীর সাজে নিজেকে সাজাতে তাই ফেব্রিক শাড়ি অষ্টমীর সন্ধ্যায় মাস্ট!

English summary

আলোর বেণুতে ভুবন মাতিয়ে ঢাকে কাঠির গুড়গুড় শুরু হতে না হতেই হুড়মুড়িয়ে এসে গেল মহাষ্টমী। পুজোর বাকি দিনগুলোতে কি পরা যায়, সেটা নিয়ে নানা মত। কিন্তু অষ্টমীর সকাল মানেই তাঁতের শাড়ী। বাংলার একান্ত নিজস্ব তাঁতের শাড়ী।

Ashtami is considered to be the most important day of Durga Puja. Even women who never like to wear traditional attires love to be dressed in authentic Bengali saris.
X