For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

(ছবি) শীতকালে কেন বাড়ে পায়ে ব্যথার সমস্যা?

|

শীত পড়তে শুরু করেছে। এই সময়ে নানা ধরনের শারীরিক সমস্যা হতে পারে। ত্বকের নানা সমস্যা তো রয়েইছে, তাছাড়া শরীরের ভিতরেও নানা ধরনের সমস্যা দানা বাঁধতে পারে। [কীভাবে পা দেখে মারণ রোগ চিনবেন]

শীতকালে অনেকেরই পায়ে ব্যথার সমস্যা হয়। তাপমাত্রা যাত কমতে থাকে, ততই পাল্লা দিয়ে বাড়ে পায়ের ব্যথা। বিশেষ করে বয়স্ক মানুষদের ক্ষেত্রে পায়ে, হাঁটুতে ব্যথা খুব সাধারণ হয়ে দাঁড়ায়। [ব্যথা, কষ্ট ও ভয় দূর করুন হাত ও আঙুলের ব্যায়াম করে]

নানা কারণে শীতের সময়ে এই পায়ের ব্যথার সমস্যা হতে পারে। কি কি কারণে তা হতে পারে তা জেনে নিন নিচের স্লাইডে। [শরীরের নানা অঙ্গে ব্যথা কমান এই উপায়ে]

আর্থারাইটিস

আর্থারাইটিস

আর্থারাইটিস বা বাতের সমস্যা শীতকালে আরও খানিকটা বাড়ে। এছাড়া বর্ষার সময়েও এতে ভোগা ব্যক্তিরা কষ্ট পান। বায়োমেট্রিক চাপ এই সময়ে কমে যাওয়ার দরুণ তাপমাত্রায় পরিবর্তন হয়। ফলে এই সময়টায় ব্যথা বেশি হয়।

স্কিয়াটিকা

স্কিয়াটিকা

এটি শীতকালে শরীরে ব্যথা হওয়ার অন্যতম কারণ। এই নার্ভটি শরীরের মধ্যে সবচেয়ে বড়। এতে চাপ বাড়লেই শরীরে অস্বস্তি হতে থাকে, ব্যথা হয়। শীতকালে এই সমস্যা আরও বেড়ে যায়।

মাংসপেশীতে খিঁচ ধরা

মাংসপেশীতে খিঁচ ধরা

শীতকালে শরীরের তাপমাত্রা কমে যায়। যার প্রভাব পড়ে মাংসপেশীতে টান ধরে। কারণ পেশী ততটা নমনীয় থাকে না। এদিকে নানা কাজে পেশীর ব্যবহার করতে গিয়ে পায়ের পেশিতে টান ধরে, ব্যথা হয়।

ফাইব্রোমাইয়ালগিয়া

ফাইব্রোমাইয়ালগিয়া

অনেক সময়ই আমরা বুঝতে পারি না সমস্যাটা ঠিক কোথায় ও কেন হচ্ছে। আর এই অবহেলার ফলে পা থেকে ব্যথা শরীরের অন্য জায়গায় ছড়িয়ে পড়ে। ফলে মাংসপেশী বা গাঁটে ব্যথা হলে অবশ্যই দেরি না করে চিকিৎসকের পরামর্শ নেওয়া উচিত।

অত্যধিক শারীরিক কসরত

অত্যধিক শারীরিক কসরত

শীতকাল ও বিশেষ করে বরফে ঢাকা এলাকায় শারীরিক চাপ স্বাভাবিকের চেয়ে আরও বেড়ে যায়। ফলে পায়ে, হাঁটুতে ব্যথা হওয়া স্বাভাবিক।

ডিহাইড্রেশন

ডিহাইড্রেশন

শীতকালে আমরা অনেকেই জল কম খাই। শরীরের প্রয়োজনের তুলনায় জল কম খাওয়া হয়। ফলে শরীরে ফ্লুইডের খামতি ধরা পড়ে। এইসময়ে মাংসপেশী এমনিতেই আড়ষ্ট হয়ে থাকে। তার উপরে জল কম খেলেই ব্যথা শুরু হয়।

English summary

Causes Of Leg Pain In Winter

Causes Of Leg Pain In Winter
Story first published: Friday, November 27, 2015, 10:37 [IST]
X