For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

উজ্জ্বল ও স্বাস্থ্যকর ত্বকের জন্য সেরা এই ছয় ভিটামিন...

|

ত্বককে সুস্থ রাখতে এবং উজ্জ্বলতা বজায় রাখতে, ভিটামিনের ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ভিটামিন ত্বককে কোমল ও মসৃণ রাখতে সহায়তা করে। এছাড়াও, ভিটামিন ত্বকের আর্দ্রতা এবং উজ্জ্বলতা বজায় রাখতে দুর্দান্ত কার্যকর। তাই বিশেষজ্ঞরা ভিটামিন সমৃদ্ধ খাবার, খাদ্য তালিকার অন্তর্ভুক্ত করার পরামর্শ দিয়ে থাকেন।

ভিটামিনের অভাব দেখা দিলে ত্বক রুক্ষ-শুষ্ক, খসখসে হয়ে ওঠে। ত্বক নিজের প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা হারায় এবং বার্ধক্যজনিত লক্ষণগুলি প্রকট হয়ে ওঠে। তাই এসব থেকে মুক্তি পেতে ভিটামিন অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। তাহলে দেখে নিন, ত্বক ভাল রাখতে কোন কোন ভিটামিন সবচেয়ে কার্যকর।

১) ভিটামিন এ

১) ভিটামিন এ

গাজর, লেটুস, মাছ, ডিমের কুসুম, প্রভৃতি হল ভিটামিন এ এর দুর্দান্ত উৎস। ভিটামিন এ ত্বক মেরামত করতে এবং ত্বক পুনরুজ্জীবিত করার জন্য অত্যাবশ্যক। এই ভিটামিনের অনুপস্থিতি, ত্বককে রুক্ষ-শুষ্ক এবং ফ্ল্যাকি করে তোলে। তাই খাদ্যতালিকায় অবশ্যই ভিটামিন এ সমৃদ্ধ খাবার অন্তর্ভুক্ত করুন।

২) ভিটামিন বি কমপ্লেক্স

২) ভিটামিন বি কমপ্লেক্স

ভিটামিন বি কমপ্লেক্স ত্বকের সুস্বাস্থ্য বজায় রাখতে, অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। সম্ভবত ত্বকের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বি ভিটামিন হল বায়োটিন, যা ত্বক, চুল এবং নখের কোষের মূল উপাদান। এর অভাবে চুল পড়া, ত্বকে চুলকানি এবং ফ্ল্যাকি স্কিন হয়ে যেতে পারে। আরেকটি বি ভিটামিন হল নিয়াসিন, যা ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখে এবং রুক্ষ-শুষ্ক ও খসখসে ত্বককে প্রশমিত করে। ভিটামিন বি এর উৎকৃষ্ট উৎসগুলির মধ্যে কলা, ডিম, ওটমিল, এপ্রিকট, অ্যাভোকাডো, সূর্যমুখী বীজ এবং চাল অন্যতম।

৩) ভিটামিন সি

৩) ভিটামিন সি

ভিটামিন-সি ত্বকের ক্ষেত্রে জন্য অত্যন্ত উপকারি। ভিটামিন সি কোলাজেন উৎপাদনে সহায়তা করে। ত্বক কোমল রাখে এবং সূর্য রশ্মি দ্বারা ক্ষতিগ্রস্ত ত্বক নিরাময় করতেও সহায়তা করে। এছাড়াও, এই ভিটামিন রিঙ্কেলস মসৃণ করে এবং বার্ধক্যজনিত লক্ষণগুলি দূরে রাখতে সহায়তা করে। এই ভিটামিনের সেরা উৎস হল সাইট্রাস ফল, পেয়ারা, বেল পেপার, সবুজ শাক, কালে, ফুলকপি প্রভৃতি।

৪) ভিটামিন ডি

৪) ভিটামিন ডি

শরীর সূর্যের আলোর সংস্পর্শে আসলে, ভিটামিন ডি উৎপন্ন করে। এটি ত্বকের স্বাস্থ্যের জন্যও খুব উপকারি। এটি ত্বকের কোষের মেটাবলিজম-এ সহায়তা করে, যা ত্বক নিরাময় এবং মেরামত করতে সাহায্য করে। ভিটামিন ডি প্রদাহ কমাতেও দুর্দান্ত সহায়ক। নিয়মিত সকালবেলা ১০-১৫ মিনিটের জন্য সূর্যের আলোর সংস্পর্শে থাকা ভিটামিন ডি পাওয়ার জন্য যথেষ্ট।

৫) ভিটামিন ই

৫) ভিটামিন ই

ভিটামিন ই ত্বককে স্বাস্থ্যোজ্জ্বল করে তুলতে দুর্দান্ত সহায়ক। এই ভিটামিন ত্বককে সূর্যের ক্ষতিকর রশ্মির প্রভাব এবং অন্যান্য ত্বকের সমস্যা থেকে রক্ষা করে। এছাড়াও, ভিটামিন ই বার্ধক্যজনিত লক্ষণ প্রতিরোধ করতেও সহায়তা করে। ব্রণ নিয়ন্ত্রণ এবং ত্বক দ্রুত নিরাময় করতে সক্ষম। বর্তমানে বাজারে ভিটামিন ই ক্যাপসুল কিংবা তেল সহজেই কিনতে পাওয়া যায়। তবে ভিটামিন ই এর প্রাকৃতিক উৎসগুলি হল ব্রকোলি, কালে, পালং শাক, আমন্ড, চিনাবাদাম, সূর্যমুখী তেল, অলিভ অয়েল এবং নারকেল তেল, প্রভৃতি।

৬) ভিটামিন কে

৬) ভিটামিন কে

অন্যান্য ভিটামিনের মতো ভিটামিন কে, অতটা সুপরিচিত নয়। তবে এই ভিটামিন ডার্ক সার্কেল দূর করতে এবং ক্ষত নিরাময়ের ক্ষেত্রে দুর্দান্ত উপকারি। বাঁধাকপি, ফুলকপি, পালং শাক, সবুজ শাকসবজি, ভিটামিন কে এর দুর্দান্ত উৎস।

English summary

Skincare Tips : These Are The Best Vitamins For Your Skin

In this article, you will learn about the best vitamins that will boost skin health and which skin issues can be controlled with these.
X