For Quick Alerts
ALLOW NOTIFICATIONS  
For Daily Alerts

শুষ্ক-রুক্ষ চুল ও খুশকির সমস্যা কমবে নিমেষেই, ব্যবহার করুন ডাবের জল!

|

ডাবের জল যে শরীরের জন্য উপকারি, সেটা তো সকলেই জানেন। কিন্তু জানেন কি রূপচর্চাতেও কাজে লাগতে পারে এই জল? ত্বক ও চুলের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করতে ডাবের জলের জুড়ি নেই। ডাবের জল ভিটামিন এবং খনিজে সমৃদ্ধ হওয়ায়, এটি চুলকে হাইড্রেট রাখে ও চুলে প্রয়োজনীয় পুষ্টিও সরবরাহ করে। চুলের রুক্ষ-শুষ্কভাবও কমায়।

তাছাড়া, ডাবের জল চুল ভাঙা প্রতিরোধ করে। স্ক্যাল্পের চুলকানি, শুষ্কভাব এবং ফ্ল্যাকি স্ক্যাল্পের সমস্যাও দূরে রাখে, খুশকি এবং স্প্লিট এন্ডস কমায়। তাহলে আসুন দেখে নেওয়া যাক, চুলের বিভিন্ন সমস্যার সমাধান করতে ডাবের জল কীভাবে ব্যবহার করবেন -

১) ফ্রেশ ডাবের জলের সরাসরি ব্যবহার

১) ফ্রেশ ডাবের জলের সরাসরি ব্যবহার

চুলে এবং মাথার ত্বকে সরাসরি ডাবের জলের ম্যাসাজ, রক্ত সঞ্চালনকে উদ্দীপিত করার পাশাপাশি চুলের ফলিকলস শক্তিশালী করে এবং চুলের বৃদ্ধিতেও সহায়তা করে। ১/২ কাপ তাজা ডাবের জল নিয়ে সরাসরি তা দিয়ে স্ক্যাল্পে ৫ মিনিট ম্যাসাজ করুন। তারপর ৩০ মিনিট রেখে শ্যাম্পু এবং ঈষদুষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ভালো ফল পেতে এটি সপ্তাহে ২-৩ বার পুনরাবৃত্তি করুন।

২) ডাবের জল এবং লেবুর রস

২) ডাবের জল এবং লেবুর রস

লেবু স্ক্যাল্পকে ভাল রাখে এবং খুশকি ও স্ক্যাল্প ব্রণ দূর করতেও সহায়তা করে। দুই কাপ ডাবের জলে ২ টেবিল চামচ লেবুর রস ভাল করে মিশিয়ে নিন। তারপর এই মিশ্রণটি নিয়ে স্ক্যাল্প সহ সমস্ত চুলে লাগিয়ে ২০ মিনিট রেখে দিন। তারপর ঈষদুষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ভাল ফল পেতে সপ্তাহে দু'দিন এই প্রক্রিয়াটি করুন।

৩) ডাবের জল এবং অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার

৩) ডাবের জল এবং অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার

অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার স্ক্যাল্পের pH লেভেল মেনটেন করতে এবং চুলের উজ্জ্বলতা বাড়াতে সহায়তা করে। এক্ষেত্রে, এক কাপ ডাবের জলে ১ টেবিল চামচ অ্যাপেল সিডার ভিনেগার মিশিয়ে, মিশ্রণটি স্ক্যাল্প সহ সারা মাথায় ভাল করে লাগিয়ে ১০ মিনিট রেখে দিন। তারপর মাইল্ড শ্যাম্পু এবং উষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে একবার করলেই যথেষ্ট।

৪) ডাবের জল এবং মধু

৪) ডাবের জল এবং মধু

মধু মাথার ত্বকের চুলকানি প্রশমিত করার পাশাপাশি, খুশকির সমস্যা প্রতিরোধ করে এবং চুলকে কন্ডিশন রাখতেও সহায়তা করে। এক্ষেত্রে এক কাপ ডাবের জলে ৪ টেবিল চামচ মধু মিশিয়ে নিন। তারপর এই মিশ্রণটি মাথার ত্বক এবং চুলে ভাল করে লাগিয়ে, ৩০ মিনিট গরম তোয়ালে মাথায় জড়িয়ে রাখুন। তারপর মাথা ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত একদিন এই প্রক্রিয়াটি করুন।

৫) ডাবের জলের হেয়ার স্প্রে

৫) ডাবের জলের হেয়ার স্প্রে

একটি স্প্রে বোতলে, ২ চা চামচ অ্যালোভেরার রস এবং ২ চা চামচ জোজোবা তেলের সাথে ১/৪ কাপ ফ্রেশ ডাবের জল মেশান। সবকটি উপকরণ একসঙ্গে মিশিয়ে স্প্রে বোতলে ঢেলে রাখুন। যখনই আপনার চুল নিস্তেজ এবং শুষ্ক মনে হয় তখনই এই স্প্রেটি ব্যবহার করুন। মিশ্রণটি ঝাঁকিয়ে নিয়ে চুলে স্প্রে করুন। মিশ্রণটি খারাপ যাতে না হয় তার জন্য ফ্রিজে রাখুন। আপনি এটি ৩-৪ দিনের জন্য সংরক্ষণ করতে পারেন।

৬) ডাবের জল, দই এবং অ্যাপেল সিডার ভিনেগার

৬) ডাবের জল, দই এবং অ্যাপেল সিডার ভিনেগার

এই প্যাকটি ড্যামেজ হেয়ার মেরামত করতে দুর্দান্ত কার্যকর। ৩ টেবিল চামচ ডাবের জলে ১ টেবিল চামচ দই এবং ১ চা চামচ অ্যাপেল সাইডার ভিনেগার মিশিয়ে, একটি পেস্ট তৈরি করে নিন। তারপর ওই পেস্টটি মাথার স্ক্যাল্প এবং চুলে লাগিয়ে ম্যাসাজ করুন। ৪৫ মিনিট রেখে ঈষদুষ্ণ জল দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ভাল ফল পেতে সপ্তাহে তিনদিন এই প্রক্রিয়াটি করুন।

English summary

Different Ways To Use Coconut Water For The Hair

Below are some ways to use coconut water for hair growth. Read on to know.
X